বাংলাদেশের সিদ্ধান্তের ওপর নির্ভর করছে ভারতের কোপা আমেরিকায় খেলা

বাংলাদেশের সিদ্ধান্তের ওপর নির্ভর করছে ভারতের কোপা আমেরিকায় খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৮:৩৫ ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

দক্ষিণ আমেরিকার সবচেয়ে বড় ফুটবল প্রতিযোগিতা কোপা আমেরিকায় প্রতিবারই ‘আমন্ত্রিত’ দল খেলে থাকে। দক্ষিণ আমেরিকার দেশগুলোর বাইরে থেকে কখনো একটি, কখনো বা দুটি দলকে কোপা আমেরিকায় আমন্ত্রণ জানিয়ে থাকে লাতিন ফুটবল সংস্থা কনমেবল। এবার ভারতের সামনেও কোপা আমেরিকা খেলার সুযোগ এসেছে। কিন্তু বাংলাদেশ না চাইলে মর্যাদাপূর্ণ এই আসরে খেলতে পারবে না তারা।

উপরের অংশটুকু পড়ে যে কারো অবাক হওয়ারই কথা। কোপা আমেরিকার এবারের আসরে অতিথি দল হিসেবে কাতার ও অস্ট্রেলিয়া অংশগ্রহণ করবে, এমন কথাই জানে সবাই। সেখানে ভারত আসে কীভাবে! মূলত এবার কোপা আমেরিকা আয়োজনের সময়ে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের এশিয়া অঞ্চলের খেলা অনুষ্ঠিত হবে। তাই কাতার ও অস্ট্রেলিয়া এ আসর থেকে নিজেদের সরিয়ে নিয়েছে। 

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, অস্ট্রেলিয়ান ফুটবল ফেডারেশন (এএফএফ) নিজেরাই কনমেবলের কাছে নিজেদের বিকল্প হিসেবে ভারতের নাম প্রস্তাব করেছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের (আইএফএ) সাধারণ সম্পাদক কুশল দাস। 

এক সাক্ষাৎকারে কুশল বলেছেন, ‘কোপা আমেরিকায় এশিয়া থেকে এবার অস্ট্রেলিয়া ও কাতারের খেলার কথা ছিল। তারা বিভিন্ন কারণে খেলতে পারবে না। কনমেবলের সঙ্গে কথা বলে ভারতের কথা জানিয়েছে অস্ট্রেলিয়া। কনমেবলও ভারতের সম্ভাব্য অংশগ্রহণের কথা ভেবে খুশি। তারা চায় আমরা যেন এবারের কোপা আমেরিকা খেলি।’

কিন্তু অস্ট্রেলিয়া ও কাতার যে কারণে কোপায় খেলতে পারছে না, সেই একই কারণ অর্থাৎ বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচ আছে ভারতেরও। সে কারণে এত বড় সুযোগ পেয়েও তা হারানোর শঙ্কায় আছে দেশটি। সূচি অনুসারে জুনেই বাংলাদেশ ও আফগানিস্তানের সঙ্গে বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচ খেলতে হবে ভারতকে। এর ফলে সহজেই যাওয়ার ব্যাপারটি নিশ্চিত করতে পারছে না তারা।

এ বিষয়ে টাইমস অব ইন্ডিয়াকে কুশল, ‘সময়সূচি নিয়ে অনেক ঝামেলা হচ্ছে। কোপা আমেরিকা জুনে আয়োজিত হবে। একই সময় আমাদের বাছাইপর্বের ম্যাচ আছে। সে সময়ের বাছাইপর্বের ম্যাচগুলো মার্চ-এপ্রিলে খেলা যায় কি না, এ নিয়ে আমরা চেষ্টা করেছি। কিন্তু বাংলাদেশ ও আফগানিস্তান এখনো সে প্রস্তাবে রাজি হয়নি।’ 

এমতাবস্থায় বিকল্প বুদ্ধিও বের করেছে ভারত। তারা দুটি জাতীয় দল গঠন করে একটিকে কোপা আমেরিকায় পাঠাতে চাচ্ছে। এই দলে খেলবেন তরুণরা। কুশল বলেন, ‘মার্চ বা এপ্রিলে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের ম্যাচগুলো হলে ভালো হতো। কিন্তু এখন তো কিছু করার নেই। তাই আমরা কোপায় তরুণদের সুযোগ দিতে চাচ্ছি। ওদের উন্নতির জন্য ব্যাপারটা অনেক সহায়ক হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এএল