‘ঐ ভাতিজা মাস্ক কই’—রিকশার পেছনে অন্যরকম গল্প

‘ঐ ভাতিজা মাস্ক কই’—রিকশার পেছনে অন্যরকম গল্প

সোশ্যাল মিডিয়া ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৯:১৫ ২৮ অক্টোবর ২০২০  

ডিপজলের ছবি সাদৃশ্য ‘ঐ ভাতিজা মাস্ক কই’। ছবি: সংগৃহীত

ডিপজলের ছবি সাদৃশ্য ‘ঐ ভাতিজা মাস্ক কই’। ছবি: সংগৃহীত

করোনাকালে মানুষকে সচেতন করতে ব্যতিক্রমী উদ্যোগ হাতে নিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘পাশে আছি ইনিশিয়েটিভ’। যেসব কমার্শিয়াল আর্টিস্ট এই করোনাকালে কাজ পাচ্ছেন না, তাদের দিয়ে রিকশার পেছনে নানা সচেতনতামূলক চিত্র আঁকিয়েছে সংগঠনটি।

তারা রিকশার পেছনে আঁকা ছবির পাশাপাশি লিখেছে, ‘ঐ ভাতিজা মাস্ক কই’, ‘মাস্ক না পরলে তোরে কুইট্টালবাম’, ‘যতোই ভাব মারো! মুখে মাস্ক না দিলে রক্ষা নাই,’ ‘চৌধুরী সাহেব আমি গরিব হতে পারি, কিন্তু ঠিকই মাস্ক পরি’।

মোশাররফ করিমের ছবি সাদৃশ্য ‘মাস্ক না পরলে তোরে কুইট্টালবাম’। ছবি: সংগৃহীত

সংগঠনটির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, শুরুর দিকে ১৫ থেকে ২০ রিকশায় এই চিত্র অঙ্কন করা হয়েছে। আগামী দিনে ২০০ থেকে ৩০০ রিকশায় এধরনের ছবি আঁকানোর পরিকল্পনা রয়েছে তাদের।

‘পাশে আছি ইনিশিয়েটিভ’-এর প্রধান তাহমিদ হাসান জানিয়েছেন, দেশে করোনাভাইরাস সংক্রমণ ঠেকাতে সাধারণ ছুটি ঘোষণার আগে সিদ্ধান্ত তারা ঠিক করেছিলেন, ৫০-৬০ জন রিকশাওয়ালা, অটোচালক ও সিএনজি চালককে চার থেকে পাঁচদিন চলার মতো খাবার দিয়ে সাহায্য করবেন। তারপরই রিকশার পিছনে ছবি আঁকানোর পরিকল্পনা তাদের মাথায় আসে।

বাংলা সিনেমার ডাইলগের মতোই কিছু ছবি স্থান পেয়েছে রিকশা চিত্রে। ছবি: সংগৃহীত

রিকশার পেছনের বডি ঢেকে রাখা টিনের আচ্ছাদনের উপরেই মূলত এসব সচেতনতামূলক বাক্য লেখা হচ্ছে। বাংলা সিনেমার পরিচিত নানা ডাইলগকে কেন্দ্র করেই এসব চিত্রকর্ম আঁকা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে