পৃথিবীর মতোই আরেক গ্রহের সন্ধান পেলেন বিজ্ঞানীরা

পৃথিবীর মতোই আরেক গ্রহের সন্ধান পেলেন বিজ্ঞানীরা

বিজ্ঞান ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১১:৩১ ৫ আগস্ট ২০২২   আপডেট: ১১:৩৭ ৫ আগস্ট ২০২২

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

লাল বামন তারার একটি গ্রহে বাসযোগ্য পরিবেশে এক ‘সুপার-আর্থে’র সন্ধান মিলেছে। যার অবস্থান  পৃথিবী থেকে ৩৭ আলোকবর্ষ দূরে। জ্যোতির্বিজ্ঞানীদের এই আবিষ্কারের দিকে এখন তাকিয়ে বিশ্ব। কারণ এটিকে আরেক ‘পৃথিবী’ বলা হচ্ছে।

র খোঁজ পেল বিজ্ঞানীরা। সুবারু স্ট্র্যাটেজিক প্রোগ্রামের জ্যোতির্বিজ্ঞানীদের এই আবিষ্কারের দিকে এখন তাকিয়ে বিশ্ব। হাওয়াইয়ের সুবারু টেলিস্কোপে ইনফ্রারেড স্পেকট্রোগ্রাফ আইআরডি-র মাধ্যমে এই খোঁজ মেলে।

বৃহস্পতিবার সকালে এ বিষয়ে টুইট করেছে মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসা। হাওয়াইয়ের সুবারু টেলিস্কোপে ইনফ্রারেড স্পেকট্রোগ্রাফ আইআরডি-র মাধ্যমে এই খোঁজ মেলে। গ্রহটির নাম Ross 508b ।

এক্সোপ্ল্যানেটটি আমাদের গ্রহের ভরের প্রায় চারগুণ। এক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য যে, এটি কিছু সময়ের জন্য তার সৌরজগতের বাসযোগ্য অঞ্চলের ভেতরে থাকে। আবার কিছু সময়ের জন্য তার বাইরে চলে যায়। তবে এখনো এর পৃষ্ঠে পানি ধরে রাখার সম্ভাবনা রয়েছে। জেমস ওয়েব স্পেস টেলিস্কোপ তার কাজ শুরু করলেই কোনো গুরুত্বপূর্ণ সন্ধান মিলতে পারে।

কোনো নক্ষত্র থেকে যে দূরত্ব পর্যন্ত প্রদক্ষিণকারী গ্রহগুলোর পৃষ্ঠে তরলাবস্থায় পানি থাকতে পারে, তাকে সেই সৌরজগতের বাসযোগ্য অঞ্চল হিসাবে ধরা হয়। বাসযোগ্য অঞ্চল-কে পোশাকি ভাষায় 'গোল্ডিলকস জোন'ও বলা হয়। এই অঞ্চলের মধ্যে প্রাণের বিকাশের জন্য আদর্শ পরিবেশগত অবস্থা থাকতে পারে। কারণ এই স্থানে গ্রহগুলি অতিরিক্ত গরম বা খুব বেশি ঠান্ডার সম্মুখীন হয় না।

Ross 508b গ্রহটির বিষয়টি একটু অন্যরকম। প্রদক্ষিণ করার সময়ে, তার কক্ষপথের কিছুটা অংশ পড়ে এই বাসযোগ্য অঞ্চলের মধ্যে। বাকিটা তার বাইরে। এক্সোপ্ল্যানেটটি সূর্যের এক-পঞ্চমাংশ ভরের একটি নক্ষত্রকে কেন্দ্র করে ঘোরে। নক্ষত্র থেকে গ্রহটির গড় দূরত্ব পৃথিবী-সূর্যের দূরত্বের ০.০৫ গুণ।

গবেষকদের মতে, গ্রহটির সম্ভবত একটি উপবৃত্তাকার কক্ষপথে রয়েছে। কক্ষপথের সময়কাল মাত্র ১০.৮ দিন।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে