শবে কদরের নামাজ পড়ার নিয়ম

শবে কদরের নামাজ পড়ার নিয়ম

ধর্ম ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৫:২১ ৯ মে ২০২১  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

লাইলাতুল কদর আরবি শব্দ, যার অর্থ হলো বরকতময়, সম্মানিত বা মহিমান্বিত রাত। রমজান মাসের শেষ দশ দিনের যেকোন বেজোড় রাত শবে-কদর। তবে সাধারণভাবে ২৭ রমজানের দিবাগত রাত‌কে পবিত্র লাইলাতুল কদর ধরা হয়। সেই হি‌সেবে আজ রাত ইবাদতের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

শবে কদরের কোন এক সময় পৃথিবীর সকল অচেতন পদার্থ, বৃক্ষ-লতা ইত্যাদি আল্লাহ্‌র উদ্দেশ্যে সিজদাহ্‌ করে থাকে। এই রজনীতে মুসলমানরা আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জনের জন্য সারারাত নফল নামাজ, কোরাআন ও হাদিসের আলোকে জিকির, কবর জিয়ারত এবং নিজের কৃত গুনাহের জন্য মহান আল্লাহর নিকট ক্ষমা প্রার্থনা করে থাকেন।

শবে-কদরের নামাজ দুই রাকআত করে চার রাকআত পড়তে হয়। এরপর যত ইচ্ছা নফল নামাজ পড়া যায়।

নামাজের নিয়ত

‘নাওয়াইতু আন উছাল্লিয়া লিল্লাহি তায়া'লা রাকআ'তাই ছালাতি লাইলাতিল কদর-নাফলি, মুতাওয়াজ্জিহান ইলা-জিহাতিল্ কা’বাতিশ্ শারীফাতি আল্লাহু আকবার’।

শবে কদরের নামাজ 

লাইলাতুল কদরে বিশেষ কোনো নামাজের পদ্ধতি নেই। লাইলাতুল কদরের রাতে নামাজ দুই রাকাত করে যত সুন্দর করে পড়া যায়, যত মনোযোগ সহকারে পড়া যায় ততই ভালো। আল্লাহ তাআলার প্রতি যত খুশু খুজুসহকারে নামাজ আদায় করা যায়, ততই ভালো।

শবে কদরের নামাজে বিশেষ কোনো সূরা পড়তে হবে-এটা লোকমুখে প্রচলিত আছে, তবে এর কোনো ভিত্তি নেই। এই রাতে কোরআন তেলাওয়াত করবেন। বেশি বেশি দোয়া পড়বেন। ইস্তেগফার পড়বেন। তওবা করবেন। এই রাতে ভালো কাজ করবেন আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জনের জন্য।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে