যেসব কারণে বিএনপি ‘ক্ষমতালোভী’ রাজনৈতিক দল

যেসব কারণে বিএনপি ‘ক্ষমতালোভী’ রাজনৈতিক দল

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৩:৪৫ ১৩ এপ্রিল ২০২২   আপডেট: ১৪:৫৭ ১৩ এপ্রিল ২০২২

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

বিএনপি একটি ক্ষমতালোভী রাজনৈতিক দল। প্রতিষ্ঠার পর থেকে তারা কখনো জনগণের কল্যাণে রাজনীতি করেনি। সর্বদা নিজেদের স্বার্থ হাসিলের চেষ্টা করায় আজ তারা জনগণ থেকে বিচ্ছিন্ন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, গণতান্ত্রিক রাজনীতি চর্চা করতে শক্তিশালী বিরোধী দল থাকা জরুরি। যে দলটি সরকারের ভুলগুলো ধরিয়ে দিয়ে জনগণের কল্যাণে কাজ করবে, দেশের উন্নয়নে কাজ করবে। কিন্তু দুর্ভাগ্য হলেও সত্যি বিএনপি একটি ক্ষমতালোভী রাজনৈতিক দল। তাদের কাজ অপপ্রচার ছড়িয়ে জনগণকে বিভ্রান্ত করা, বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে পেছনের দরজা দিয়ে ক্ষমতা দখলের চেষ্টা করা। এমন বিরোধী দল গণতন্ত্রের জন্য হুমকিস্বরূপ।

এ বিষয়ে রাজনৈতিক বিশ্লেষক ও বুদ্ধিজীবীরা বলেন, অপপ্রচার আর গুজব ছাড়া দেশের রাজনীতিতে বিএনপির দেওয়ার মতো কিছুই নেই। তাদের এসব কর্মকাণ্ডই প্রমাণ করে যে, তারা রাজনৈতিকভাবে দেউলিয়া। জনবিচ্ছিন্ন এই দলটি জনগণের উন্নয়নে রাজনীতি না করে উল্টো জনগণকে বিভ্রান্ত করার রাজনীতি করছে।

আরো পড়ুন> নেতৃত্বের সংকটই ভোগাচ্ছে বিএনপিকে

বিএনপি রাষ্ট্রক্ষমতায় থাকতেও জনবান্ধব ছিল না। বিরোধী দল হিসেবেও দলটির কোনো আদর্শ নেই। বিএনপি আগে থেকেই ধ্বংসাত্মক কর্মকাণ্ডে লিপ্ত। ক্ষমতার লোভে মানুষ পুড়িয়ে মারতেও দ্বিধা করেনি দলটি।

এ বিষয়ে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক সদ্য বিএনপি ছেড়ে আসা এক নেতা বলেন, অতীতেও মানুষ হত্যার রাজনীতি করেছে বিএনপি। সাধারণ মানুষ এখন বিএনপির অপরাজনীতি সম্পর্কে ভালোভাবে ওয়াকিবহাল। বিরোধী দল হিসেবে বিএনপি ও জাতীয় পার্টিই দেশের মানুষের কাছে বেশি পরিচিত। দল দুটি অবৈধভাবে ক্ষমতা দখল করেছিল। স্বৈরতান্ত্রিক কায়দায় ক্ষমতা দখলের কারণে তাদের সঙ্গে মাটি ও মানুষের সম্পর্ক নেই। ক্ষমতা তাদের কাছে ভোগের জায়গা।

ডেইলি বাংলাদেশ/এএএম/এমএস/এইচএন