বিষধর চন্দ্রবোড়া সাপ ধরে দু’দিন প্লাস্টিকের জারে আটকে রেখেছেন মুদি দোকানি

বিষধর চন্দ্রবোড়া সাপ ধরে দু’দিন প্লাস্টিকের জারে আটকে রেখেছেন মুদি দোকানি

মাদারীপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ০১:৫১ ২৩ মার্চ ২০২২   আপডেট: ০১:৫২ ২৩ মার্চ ২০২২

প্লাস্টিকের জারে বিষধর রাসেল ভাইপার (চন্দ্রবোড়া)

প্লাস্টিকের জারে বিষধর রাসেল ভাইপার (চন্দ্রবোড়া)

মাদারীপুরের শিবচরের বাংলাবাজার ঘাটে একটি ভয়ঙ্কর বিষধর রাসেল ভাইপার (চন্দ্রবোড়া) সাপ ধরা হয়েছে। স্থানীয় এক মুদি ব্যবসায়ী সাপটিকে ধরে গত দু’দিন ধরে একটি প্লাস্টিকের জারে আটকে রেখেছেন।

জানা যায়, উপজেলার বাংলাবাজার ঘাটের অনন্যা মুদি স্টোরের মালিক লিটন মিয়া গত সোমবার (২১ মার্চ) দুপুরে তার দোকানের ফ্রিজের পাশে একটি বিরল প্রজাতির সাপ দেখতে পান। প্রথমে অজগর সাপের বাচ্চা ভেবে পাশের দোকানিকে ডেকে সাপটি ধরার চেষ্টা করেন। সাপটি শারীরিকভাবে কিছুটা দুর্বল থাকায় তারা দুজন মিলে কৌশলে সাপটি ধরে একটি প্লাস্টিকের জারে আটকে ফেলেন। 

সাপটি দেখতে অপরিচিত হওয়ায় তারা ইন্টারনেটের মাধ্যমে গুগলে সার্চ দিয়ে সাপটি সম্পর্কে জানার চেষ্টা করেন। গুগল থেকে তারা জানতে পারেন সাপটি ভয়ঙ্কর রাসেল ভাইপার। পরে স্থানীয় সাংবাদিকদের মাধ্যমে খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বিষয়টি বন বিভাগকে জানান।

মুদি দোকানি লিটন মিয়া বলেন, প্রায় ৬ মাস আগে অল্প সময়ের জন্য সাপটিকে একবার দোকানের ভেতরে দেখেছিলাম। তারপর আর পাইনি। সোমবার আবারও সাপটিকে দোকানের ফ্রিজের পাশে দেখতে পাই। তখন পাশের দোকানের একজনকে ডেকে এনে দুজনে মিলে সাপটিকে ধরে একটি প্লাস্টিকের জারে আটকে রেখেছি। পরে গুগলে সার্চ দিয়ে জানতে পারি এটি ভয়ঙ্কর রাসেল ভাইপার সাপ। পরে সাংবাদিকদের মাধ্যমে প্রশাসনকে জানানো হয়েছে। সাপটি আমার কাছ থেকে তারা যত দ্রুত সম্ভব যেন নিয়ে যায়। কারণ, আমি অনেক আতঙ্কে আছি।

উল্লেখ্য, রাসেল ভাইপার বিশ্বব্যাপী কিলিং মেশিন হিসেবে খ্যাত। আক্রমণের ক্ষেত্রে এটি মারাত্মক ক্ষিপ্র। এর কামড়ের পর শরীরের আক্রান্ত স্থানের টিস্যু নষ্ট হয়ে সঙ্গে সঙ্গে পচন শুরু হয়। সময়মতো আক্রান্ত ব্যক্তি চিকিৎসা না পেলে তার মৃত্যু অবধারিত।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম