আপনার মনের বয়স কত? জেনে নিন একটি মজার কুইজ দিয়ে

আপনার মনের বয়স কত? জেনে নিন একটি মজার কুইজ দিয়ে

লাইফস্টাইল ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৪:৫০ ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২২  

আপনার মনের বয়স কত যেভাবে জানবেন। ছবি: সংগৃহীত

আপনার মনের বয়স কত যেভাবে জানবেন। ছবি: সংগৃহীত

দিন যত যায় ততোই বয়স বাড়তে থাকে। দেহে দেখা দেয় বার্ধক্যজনিত দুর্বলতা। কিন্তু মন কি বুড়িয়ে যায়? বয়স যতই হোক না কেন মানুষের চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য পুরোপুরি মনের ওপর নির্ভর করে।

সেজন্যই মাঝে মাঝে আশি বছর বয়সী মানুষকে বাচ্চাদের মতো বায়না ধরতে দেখা যায়। আবার অল্প বয়সী অনেকের মধ্যে গাম্ভীর্যও লক্ষ্য করা যায়। আমাদের দেহ বাহ্যিক ভাবে যত বয়সই প্রকাশ করুক না কেন, আমরা কোন ধরনের মানুষ এবং আমাদের চিন্তা ভাবনা কীভাবে কাজ করে তা শুধুমাত্র মানসিক বয়স প্রকাশ করে থাকে।

আচ্ছা,আপনার বয়স কত? ২০,৩০,৪০… নাকি ৫০ কিংবা তারও বেশি? শরীরের বয়স যাই হোক না কেন, প্রত্যেকটা মানুষের একেবারে নিজস্ব একটা মানসিক বয়স থাকে। আর এই জন্যই কিছু মানুষ চিরকাল তরুণ, আবার কোনো শিশু শৈশবেই গম্ভীর। আপনি কি জানেন আপনার মনের বয়স কত? কিংবা আপনি কেমন বয়সী মানুষের মত আচরণ করে থাকেন? এমন একটি মজার কুইজ রয়েছে যার মাধ্যমে জানা যাবে আপনার নিজের সত্যিকারের বয়সটি! চলুন তবে কুইজটি জেনে নেয়া যাক- 

১. ছুটির দিনে আপনি সাধারনত কি করে থাকেন?

ক) ঘুম। ছুটি তো ঘুমানোর জন্যই। 
খ) পুরো সপ্তাহের অনেক কাজ জমে থাকে। সেগুলোই করা হয়। 
গ) বন্ধুদের আড্ডা, ঘুরাঘুরি, পার্টি !!!
ঘ) পরিবারকে সময় দিই। 

২. আপনার জন্মদিন কিভাবে পালন করে থাকেন?

ক) কলিগ/বন্ধুরা কেক কাটাকাটি করে। 
খ) অনেক বড় পার্টি দিয়ে করি।
গ) এখন কি আর জন্মদিন পালন করার বয়স আছে?
ঘ) ঘরে কিছু বন্ধু বান্ধব কে দাওয়াত দিয়ে
 
৩. রবীন্দ্রনাথের লেখা কেমন লাগে?

ক) অসাধারণ, রোমান্টিক উপন্যাস ভালোই লাগে।
খ) বেশ ভালো, সামাজিক সমস্যা তুলে ধরেছেন তিনি।
গ) কে? পড়ি নি তার কোনো বই। 
ঘ) মোটামুটি, অনেক কিছুই বোঝা কঠিন।

৪. আপনি ড্রাগসের বিরুদ্ধে, কিন্তু আপনার অনেক আপন কেউ আপনাকে ড্রাগস নিতে বললে কি করবেন?

ক) যত আপনই হোক না কেন নেব না। 
খ) একটু নিয়ে দেখলে তো দোষের কিছুই নেই। 
গ) কখনোই নেব না, তাকে বোঝাবো যাতে সেও ছেড়ে দেন। 
ঘ) পুলিশকে জানিয়ে দেব। 

আরো পড়ুন: পাঁচটি ভুল বিগড়ে দিতে পারে আপনার প্রথম ডেটের আনন্দ
 
৫. ধরুন কোনো যেমন খুশি তেমন সাজো অনুষ্ঠানে কিংবা কোনো হ্যালোউইন পার্টিতে আপনাকে ডাকা হলো, আপনি কি করবেন?

ক) সাধারণ পোশাকে গিয়ে অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকব। 
খ) ধুর… কিসের অনুষ্ঠান। এর থেকে বাসায় থাকা ভালো। 
গ) অবশ্যই যাব। পার্টি অনুযায়ী পোশাক তো অবশ্যই পরবো।
ঘ) বন্ধুরা গেলে যেতে পারি।

৬. আপনার প্রেমিক/প্রেমিকা হঠাৎ আপনাকে ডেটে আসতে বললেন। একসঙ্গে কোনো সিনেমা দেখবেন। আপনার হাতে মাত্র ৩০ মিনিট সময় আছে। আপনি কি করবেন?

ক) যত তাড়াতাড়ি সম্ভব যাবো।
খ) ৩০ মিনিটে তৈরি হওয়া যায়। বাদ দেয়া যায় না?
গ) আর একটু আগে বললে ভালো মত তৈরি হতে পারতাম। 
ঘ) ১৫ মিনিটের মধ্যে হাজির থাকবো।

ফলাফল

১ এর ক-১৫, খ-২০, গ-৫, ঘ-১০
২ এর ক-১৫, খ-৫, গ-২০, ঘ-১০
৩ এর ক-১৫, খ-২০, গ-৫, ঘ-১০
৪ এর ক-১০, খ-৫, গ-২০, ঘ-১৫
৫ এর ক-১৫, খ-২০, গ-৫, ঘ-১০
৬ এর ক-১০, খ-২০, গ-১৫, ঘ-৫

৩০ থেকে ৫০ এর জন্য

আপনার মানসিক বয়স ১৩ থেকে ১৮ বছরের কিশোরকিশোরীর মত। আপনি আপনার সকল চিন্তা দূরে রেখে কিশোর বয়সের মতো জীবনে যা আছে তা নিয়ে সুখী থাকেন। নিজের মত করে সুখী থাকা অনেক মানুষই পারে না। কিন্তু কিছু কিছু ব্যাপারে আপনি অনেক বেশী ছেলেমানুষি করে থাকেন। এইসব প্রভাব ফেলে আপনার কর্মজীবন ও ব্যক্তিগত সম্পর্কের উপরেও। তাই একটু সামলে!

৫১ থেকে ৭০ এর জন্য

আপনার মানসিক বয়স ১৯ থেকে ২৪ বছর বয়সী তরুণদের মতো। আপনি অনেক কিছু চিন্তা করে পা ফেলার চেষ্টা করেন। কিন্তু তারপরও নিজেকে এখনো কিশোর মনোভাব থেকে বিরত রাখতে পারেন নি। বিরত রাখতে হবে না। কিছুটা ছেলেমানুষি মজা জীবনে দরকার আছে। তবে খেয়াল রাখবেন, এসবে যেন আর্থিক ক্ষতি না হয়ে যায়।

৭১ থেকে ১০০ এর জন্য

আপনার মানসিক বয়স ২৫ থেকে ৩৫ বছর বয়সী পূর্ণ বয়স্ক মানুষের মত। জীবনে সব কিছু বুঝে শুনে কাজ করার ক্ষমতা রাখেন আপনি। যখন যেখানে যেভাবে থাকতে হবে সেভাবেই নিজেকে মানিয়ে নেয়ার অপূর্ব ক্ষমতা রয়েছে আপনার।

১০১ থেকে ১২০ এর জন্য

আপনার মানসিক বয়স ৩৫ থেকে এর উপরে। আপনি অনেক বেশী গাম্ভীর্য নিয়ে চলা ফেরা করেন। জীবনের ব্যস্ততা ও বাস্তবতা আপনাকে কোনো আনন্দময় কাজের অবসর দেয় না। এর অর্থ আপনি নিজেই আনন্দময় কোন কাজে নিজেকে সামিল করেন না। এতোটা গাম্ভীর্য ঠিক নয়। জীবনকে আনন্দময় করার চেষ্টা করুন।

ডেইলি বাংলাদেশ/এএ