মাছচাষি হত্যা: লাশ নিয়ে মানববন্ধন-বিক্ষোভ

মাছচাষি হত্যা: লাশ নিয়ে মানববন্ধন-বিক্ষোভ

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৪:৩৭ ১৯ ডিসেম্বর ২০২১  

লাশ সামনে রেখে মানববন্ধন

লাশ সামনে রেখে মানববন্ধন

কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় প্রতিপক্ষের হামলায় মাছচাষি দানেজ আলী হত্যার বিচারের দাবিতে লাশ নিয়ে মানববন্ধন-বিক্ষোভ করেছে এলাকাবাসী।

রোববার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ভেড়ামারা বাজার এলাকায় দাফনের আগে তার লাশ সামনে রেখে হাজারো মানুষের উপস্তিতিতে এ মানববন্ধন করা হয়। মানববন্ধনে অভিযুক্তদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান ওই এলাকার লোকজন। এ সময় তারা মাছচাষি দানেজ হত্যাকারীদের ফাঁসির দাবিতে স্লোগান দেন।

মানববন্ধনে বক্তরা বলেন, আমরা খুনিদের ফাঁসির দাবি জানাচ্ছি। বিলশুকা গ্রামের মাঠে দানেজ আলীকে একা পেয়ে প্রতিপক্ষের লোকজন রামদা দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে হত্যা করে। অবিলম্বে হত্যাকারীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবি জানাচ্ছি।

ভেড়ামারা থানার ওসি মো. মুজিবুর রহমান বলেন, প্রতিপক্ষের হামলায় দানেজ আলীর মৃত্যু হয়। কয়েক মাস ধরে শত্রুতার জেরে স্থানীয় কয়েকজনের সঙ্গে দানেজ আলীর বিরোধ চলছিল। বিরোধের জেরে এ হত্যাকাণ্ড ঘটতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। খুনিদের ধরতে পুলিশের অভিযান চলছে। এছাড়া সংঘর্ষ এড়াতে এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

শুক্রবার বিকেলের দিকে বিলশুকা গ্রামের মাঠে নিজের গমক্ষেতে যান দানেজ আলী। এ সময় পূর্বশত্রুতার জেরে জিয়াউল ইসলাম জিয়া, রবিউল, আছান, সাগর, শিমুল, লিপন, শাহীন, শ্যামল, সুজনসহ আরো কয়েকজন রামদা, হাসুয়া, লাঠিসোঁটা, হাতুড়ি দিয়ে দানেজকে কুপিয়ে ও মারধর করে পালিয়ে যান। এতে গুরুতর আহত হন দানেজ আলী। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। সেখানে শনিবার সকালে তিনি মারা যান।

নিহতের ছেলে উজ্জ্বল বলেন, দুই মাস আগে প্রতিপক্ষের লোকজন আমাদের পুকুরে মাছ লুটপাট করতে আসেছিল। বাধা দেওয়ায় সে সময়ও তারা আমাদের ওপর হামলা চালিয়ে কয়েকজনকে আহত করেছিল। এবার মাঠে আমার বাবাকে একা পেয়ে হত্যা করল।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর