ডি ব্রুইনকে লড়াই করতে হবে: পেপ গার্দিওলা

ডি ব্রুইনকে লড়াই করতে হবে: পেপ গার্দিওলা

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৪:২৭ ৮ ডিসেম্বর ২০২১  

কেভিন ডি ব্রুইন

কেভিন ডি ব্রুইন

লড়াই করেই কেভিন ডি ব্রুইনকে ম্যানচেস্টার সিটির নিয়মিত স্কোয়াডে স্থান করে নিতে হবে বলে সতর্ক করে দিয়েছেন ক্লাবটির প্রধান কোচ পেপ গার্দিওলা। ইনজুরি ও করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বেলজিয়ান এই মিডফিল্ডারের ধারাবাহিকতায় ছন্দপতন ঘটেছিল।

গত শনিবার ওয়াটফোর্ডের বিপক্ষে বদলী হিসেবে মাঠে ফিরেন ডি ব্রুইন। ইউরো ২০২০ আসরে দেশের হয়ে খেলতে নেমে পায়ের গোড়ালির লিগামেন্টে আঘাত পান তিনি। যে কারণে সেপ্টেম্বরের শেষভাগ পর্যন্ত প্রিমিয়ার লিগে তার নিয়মিত অংশগ্রহণে ব্যাঘাত ঘটে। এরপর যখনই তিনি ফর্ম ফিরে পেতে শুরু করছিলেন তখনই করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হন ৩০ বছর বয়সী মিডফিল্ডার।

গার্দিওলা বলেন, করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হবার পর ক্রমেই শারিরীক সক্ষমতা ফিরে পেতে শুরু করেছে ডি ব্রুইন। করোনায় আক্রান্ত হবার বিষয়টি ছিল তার জন্য একটি বিপর্যয়। তবে এটি একটি স্বাভাবিক ঘটনা।

তিনি আরো বলেন, যারাই এই ভাইরাসে আক্রান্ত হন তারাই এর পর কিছুটা অস্বস্তি বোধ করেন। ধাপে ধাপে এগুতে হবে। প্রথমে সে ৩০ মিনিট খেলেছে। পরের ম্যাচে সে শুরু থেকে খেলবে। আমরা দেখছি কতক্ষন সে খেলতে পারে।

অতীতের দক্ষতা সত্বেও ক্লাবের মুল একাদশে জায়গা পেতে লড়াই করতে হবে ডি ব্রুইনকে। কারণ ম্যানচেস্টার সিটি এমন একটি ক্লাব, যেখানে একাদশে জায়গা পেতে  খেলোয়াড়দের মধ্যে তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতা হয়। গার্দিওলার মতে এই মুহুর্তে প্রিমিয়ার লিগের সেরা খেলোয়াড় বার্নাডো সিলভা।

সিটি কোচ বলেন, অন্যদের মতো তাকেও স্থান দখলের জন্য লড়াই করতে হবে। আমার কাছে কেভিনের আলাদা করে কিছু দেখানোর নেই। কিন্তু নিজ দক্ষতা দিয়েই তাকে একাদশে ফিরতে হবে। এবং আগের মত নিজের সক্ষমতার প্রমান দিতে হবে।

প্রতিযোগিতার জন্য লড়াই অবশ্যই জরুরী। সেও তা জানে। অবশ্য বার্নাডোও বিষয়টি নিয়ে অবগত আছে। এমনকি ইলকি গুন্ডোগানসহ দলের সব উইঙ্গার ও স্ট্রাইকাররা বিষয়টি জানে। তারা সবাই জানে ৫ মিনিট, ১০ মিনিট কিংবা ৯০ মিনিট-যাই হোক না কেন ভাল খেলতে হবে।’

ডেইলি বাংলাদেশ/এএল