ভূমিকম্পের পরেই সুনামি, প্রবল দুর্যোগের কবলে গ্রিস

ভূমিকম্পের পরেই সুনামি, প্রবল দুর্যোগের কবলে গ্রিস

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৪:৪০ ৩১ অক্টোবর ২০২০  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

রিখটার স্কেলে ৬ দশমিক ৬ মাত্রার ভয়াবহ ভূমিকম্পে কেঁপে উঠেছিল পশ্চিম এশিয়ার দেশ তুরস্ক ও গ্রিস। শুক্রবার তুরস্কের স্থানীয় সময় দুপুর ২টা ৫১ মিনিটে এ ভূমিকম্প আঘাত আনে। এদিকে ভূমিকম্পের জের কাটিয়ে উঠতে না উঠতেই গ্রিসে ধাক্কা দেয় সুনামি। সমুদ্রের পানিতে ভেসে যায় পুরো এলাকা।

জানা  গেছে, আইজিয়ান সাগরের জলবসতি এলাকায় ঢুকে গিয়েছে, আর তাতে ভেসে যাচ্ছে এলাকা। বন্যার আকার ধারণ করেছে এই সুনামির মত পরিস্থিতি।

গ্রিসের সংবাদমাধ্যম জানাচ্ছে, ভূমিকম্পের জেরে সামোসের পূর্ব আইজিয়ান সাগর দ্বীপে একটি ছোট সুনামি হয়। বেশ কয়েকটি বিল্ডিং ক্ষতিগ্রস্ত হয়। সুনামির ফলে পানি রাস্তা অবধি উঠে আসতে দেখা গিয়েছে। হঠাৎ এই প্রাকৃতিক বিপর্যয়ের জেরে তুরস্ক ও গ্রিসে মৃত্যু হয়েছে ২৬ জনের। আহত হয়েছেন অন্তত ৮শ’ জন। তুরস্কের স্বাস্থ্যমন্ত্রী ৬ জনের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছেন।

তুর্কি সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, এখনো উদ্ধার অভিযান অব্যাহত রেখেছে দমকল বাহিনী।  ভূমিকম্প টের পাওয়ার পরেই আতঙ্কে ঘর বাড়ি ছেড়ে রাস্তায় বেরিয়ে আসেন তুরস্কের উপকূলবর্তী শহর ইজমিরের বাসিন্দারা। ইজমিরের বায়রাকলি ও বোর্নোভা জেলায় ৬ টি বাড়ি ধসে পড়েছে বলে জানা গিয়েছে।

এজিয়ান এবং মারমারা এলাকায় কম্পন অনুভূত হয়েছে। ইস্তানবুলের গভর্নর জানিয়েছেন, প্রাথমিক ভাবে কোনো ক্ষয় ক্ষতির খবর নেই। প্রথম ভূমিকম্পের পরে উভয় দেশেই আফটার শক অনুভূত হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

টিআরটি টেলিভিশন দেখিয়েছে, একটি সাত তলা ভেঙে পড়া বিল্ডিং থেকে বের করে আনা হচ্ছে আটকে থাকা মানুষকে।

এদিকে সোশ্যাল মিডিয়ায় বেশ কয়েকটি সুনামির ভিডিও ছড়িয়েছে। সেখানে দেখা গিয়েছে জল ঢুকে পড়েছে শহরের রাস্তায়। আতঙ্কিত মানুষজন।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএএইচ