ভারতে কার্যক্রম স্থগিত করল অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল

ভারতে কার্যক্রম স্থগিত করল অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৬:১৯ ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

ভারতে সব ধরনের কার্যক্রম স্থগিত করেছে আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠন অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল। দেশটির সরকারের পক্ষ থেকে সংগঠনটির ব্যাংক অ্যাকাউন্ট জব্দ করায় বাধ্য হয়ে এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে অ্যামনেস্টি জানায়, ভারতে তাদের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট অবরুদ্ধ করার বিষয়টি তারা জানতে পারে গত ১০ সেপ্টেম্বর। দেশটির সরকারের এ পদক্ষেপের ফলে সেখানে অ্যামনেস্টির মানবাধিকার সংক্রান্ত সব প্রচার কাজ ও গবেষণা থমকে গেছে। অধিকাংশ কর্মীকে ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়েছে তারা।

ব্যাংক হিসাব জব্দের ঘটনায় ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে ‘উইচ-হান্ট’-এর অভিযোগ তুলেছে অ্যামনেস্টি।

যুক্তরাজ্যভিত্তিক এই আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠনের অভিযোগ, বিভিন্ন বিষয়ে প্রতিকূল প্রতিবেদনের জেরে অ্যামনেস্টির বিরুদ্ধে ভারত সরকার এমন ব্যবস্থা নিয়েছে।

সংগঠনটির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব জুলি ভেরার বলেন, ‘ভারত সরকারের এ ভয়ঙ্কর ও লজ্জাজনক পদক্ষেপের ফলে সেখানে মানবাধিকার বিষয়ক আমাদের গুরুত্বপূর্ণ কাজগুলো আপাতত থমকে গেছে। তবে ভারতে মানবাধিকার প্রতিষ্ঠার সংগ্রামে আমাদের অঙ্গীকার এবং সম্পৃক্ততার অবসান তাতে হয়নি। সামনের দিনগুলোতে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল কীভাবে ভারতের মানবাধিকার আন্দোলনে ভূমিকা রাখতে পারে, তা আমরা খুঁজে বের করব।’

এদিকে ভারত সরকারের দাবি, আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠনটি বেআইনিভাবে বিদেশি ফান্ড সংগ্রহ করছে। আর তারা ফরেন কনট্রিবিউশন (রেগুলেশন) আইনে সংগঠনের নাম নিবন্ধিতও করেনি।

গতবছর অ্যামনেস্টির বিরুদ্ধে একটি মামলাও দায়ের করে ভারতের কেন্দ্রীয় তদন্ত ব্যুরো। সেই মামলাায় বলা হয়েছে, অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের যুক্তরাজ্য শাখা ভারত সরকারের অনুমতি না নিয়েই এফডিআই আকারে ১০ কোটি পাউন্ড তাদের ভারত শাখায় পাঠিয়েছে। 

এছাড়া আরও ২৬ কোটি পাউন্ড অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের ভারত শাখায় পাঠানো হয়েছে যুক্তরাজ্য থেকে, সেখানেও ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনুমতি নেয়া হয়নি বলে অভিযোগ করা হয়েছে মামলায়।

তবে অ্যামনেস্টির ভাষ্য, তারা ভারতীয় ও আন্তর্জাতিক আইন মেনেই কাজ করে আসছে।

সূত্র: বিবিসি, এনডিটিভি

ডেইলি বাংলাদেশ/মাহাদী