মহামারি রুখতে এবার মুখে সোনার মাস্ক, দাম সাড়ে ছয় লাখ

মহামারি রুখতে এবার মুখে সোনার মাস্ক, দাম সাড়ে ছয় লাখ

মজার খবর ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১১:৫৩ ১৩ নভেম্বর ২০২১   আপডেট: ১১:৫৪ ১৩ নভেম্বর ২০২১

সোনার মাস্ক। ছবি সংগৃহীত

সোনার মাস্ক। ছবি সংগৃহীত

পাখির বাসা কিংবা নিম-তুলসী পাতা দিয়ে মাস্ক বানিয়ে পরার কথা এর আগে আমরা শুনেছি। তবে কখনো কি শুনেছেন সোনার মাস্ক বানিয়ে পরার কথা? আমার বিশ্বাস যে এমনটা আগে কখনো শোনা বা দেখেন নি। তাহলে সেটাও এবার দেখে নিতে পারেন। এমন অদ্ভুত ঘটনাটি ঘটিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের বজবজের গয়না ব্যবসায়ী চন্দন দাস নামে এক ব্যক্তি। 

সোনার এই মাস্ক পরে বাইরে বেরতেই লোকের কৌতূহলের ঠেলায় মাস্ক খুলে পকেটে পুরে বাড়ি ফিরতে হলো মাস্ক মালিককে। সোনার ঐ মাস্কের ওজন ১০৮ গ্রাম। মাস্কটি বানাতে সময় লেগেছে ১৫ দিন। যার দাম ৫ লাখ ৭০ হাজার টাকা। বাংলাদেশি মুদ্রায় যা ছয় লাখ ৫৭ হাজার ৭৫১ টাকা। বজবজে প্রতিষ্ঠিত সোনার দোকান গণেশ জুয়েলারি। গ্রাহকের অনুরোধেই এই মাস্ক তৈরি করে তারা।

চন্দন দাস বলেন, এই মাস্কটির নীচে একটি সার্জিকাল মাস্ক পরতে হবে। হলুদ রঙের। তার জন্য আমরা আলাদা করে ব্যবস্থাও করে রেখেছি মাস্কটির ভেতরে। সেই সোনার মাস্কের ছবি সামনে আসার পরই সমালোচনায় সরব হয়েছেন নেটিজেনরা। সম্পত্তির নির্লজ্জ দেখনদারি বলে কটাক্ষ করেছেন তারা। 

তবে চন্দন দাসের বক্তব্য, ‘অনেকে অনেকরকম কথাই বলছেন। সে বলতেই পারেন। তবে আমরা তো গ্রাহকের অনুরোধ মেনেই এই অর্ডার নিয়েছি।’ তবে প্রথমবার অর্ডার পেলেও দ্বিতীয়বার এই মাস্ক তৈরির অর্ডার আসেনি বলেই জানান ঐ সোনা ব্যবসায়ী।

ডেইলি বাংলাদেশ/এসএ