নির্ধারিত দামে ইন্টারনেট না দিলে অভিযোগ করবেন যেভাবে

নির্ধারিত দামে ইন্টারনেট না দিলে অভিযোগ করবেন যেভাবে

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ০১:২৫ ৯ জুন ২০২১   আপডেট: ১০:৩৩ ৯ জুন ২০২১

৫০০ টাকায় পুরো মাস ইন্টারনেট সারাদেশে। ছবি: সংগৃহীত

৫০০ টাকায় পুরো মাস ইন্টারনেট সারাদেশে। ছবি: সংগৃহীত

সারাদেশে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের নতুন মূল্য নির্ধারণ করেছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। নির্ধারিত ‘এক রেটে’ না দিলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

বিটিআরসির গণমাধ্যম শাখার উপ-পরিচালক জাকির হোসেন বলেন, দেশের যেকোনো প্রান্তে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের একই দাম নির্ধারণ করা হয়েছে। কেউ যদি এই রেটে সংযোগ না পান তাহলে তিনি ১০০ নম্বর ডায়াল করে কমিশনে অভিযোগ জানাতে পারেন।

এছাড়া বিটিআরসির এই লিংকে http://btrc.isslcrm.com/ComplainManagement ঢুকেও অভিযোগ জানানো যাবে।

কোনো সেবাদাতা নিয়ম ভাঙার সুযোগ নেই। এটা যদি কেউ করেন তাহলে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও জানান জাকির হোসেন।

বিটিআরসি জানিয়েছে, প্রতি সংযোগে সর্বোচ্চ ৮ জন গ্রাহকের শেয়ার্ড করতে পারবে ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডাররা। এক্ষেত্রে ৫ এমবিপিএস ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের দাম সর্বোচ্চ ৫০০ টাকা, ১০ এমবিপিএস ৭০০ থেকে ৮০০ টাকা ও ২০ এমবিপিএস-এর দাম ১১০০ থেকে ১২০০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার অ্যাসোসিয়েশন-আইএসপিএবির সভাপতি আমিনুল হাকিম বলছেন, নির্ধারিত রেটে নির্ধারিত ব্যান্ডউইথে সংযোগ দিতে সমস্যা হবার কথা না। তারপরও কোথাও সেবা সংক্রান্ত সমস্যা হলে আমরা সংশ্লিষ্ট আইএসপির সঙ্গে কথা বলে বিষয়টি সুরাহা করে দেয়া হবে।

শহর ছাড়িয়ে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট এখন ইউনিয়ন পর্যায়ে তথা গ্রামেও পৌঁছে গেছে। ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের গ্রাহক বর্তমানে দেশে প্রায় এক কোটি। এই সংখ্যক গ্রাহক দেশের মোট ইন্টারনেট ব্যবহাকারীর ১৭ শতাংশ। কিন্তু এই গ্রাহকরা দেশের মোট ব্যান্ডউইথের ৫৮ শতাংশ ব্যবহার করে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে