স্মার্টফোন ব্যবসা বন্ধ করছে এলজি

স্মার্টফোন ব্যবসা বন্ধ করছে এলজি

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৫:১৩ ২৩ জানুয়ারি ২০২১  

স্মার্টফোন ব্যবসা থেকে সরে যাচ্ছে এলজি। ছবি: সংগৃহীত

স্মার্টফোন ব্যবসা থেকে সরে যাচ্ছে এলজি। ছবি: সংগৃহীত

বিশ্বজুড়ে স্মার্টফোনের বাজার দিন দিন প্রতিযোগীতামূলক হয়ে উঠছে। কে কতটা নিত্যনতুন উদ্ভাবনী প্রযুক্তি নিয়ে আসছে, সেদিকেই নজর ব্যবহারকারীদের। এ দৌড়ে অনেকটাই পিছিয়ে আঠে একসময়ের জনপ্রিয় স্মার্টফোন ব্র্যান্ড এলজি। গত পাঁচ বছরে টানা লোকসানের বোঝা মাথায় নিয়ে স্মার্টফোন ব্যবসা বন্ধ করছে দক্ষিণ কোরীয় এ সংস্থা। খবর রয়টার্স।

এলজি জানিয়েছে, লোকসানে থাকা মোবাইল বিভাগ নিয়ে সব বিকল্পের বিষয়ে বিবেচনা করা হচ্ছে। বিশ্লেষকদের ধারণা, প্রতিষ্ঠানটি তার স্মার্টফোন ব্যবসা বন্ধ কিংবা কিছু অংশ বিক্রি করে দিতে পারে।

২০০৯ সালে প্রথম অ্যানড্রয়েড স্মার্টফোন বাজারে আনে এলজি। এর ঠিক দুই বছরের মধ্যেই প্রতিষ্ঠানটি আরেক চমক নিয়ে আসে, তা হলো অ্যানড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেম চালিত ট্যাবলেট। ২০১৩ সালের প্রথম প্রান্তিকে এলজি বিশ্ব স্মার্টফোন বাজারে তৃতীয় স্থান দখল করে নেয়। কিন্তু চীনা ব্র্যান্ডের আধিপত্যে ক্রমান্বয়ে স্মার্টফোন বাজার থেকে ছিটকে পড়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

বিশ্লেষকরা বলছেন, এলজি যদি স্মার্টফোন ব্যবসা বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নেয়, তবে সংস্থাটি তাদের বাজার মূলধন ৩৬০ কোটি ডলার বাড়িয়ে তুলতে পারে। যেহেতু এতদিন ধরে সাড়ে পাঁচ বছরেরও বেশি লোকসানের ক্ষয়ক্ষতি ও সম্পদের বিচ্ছিন্নকরণের বিষয়গুলো তাদের সম্পদের হিসাবে অন্তর্ভুক্ত ছিল।

এক সময় অ্যাপল ও স্যামসাংয়ের শক্ত প্রতিদ্বন্দ্বী এলজি ইলেকট্রনিক্স ১৯৫৮ গোল্ডস্টার নামে যাত্রা করেছিল। কোরিয়ান যুদ্ধের পর দেশীয় ভোক্তাদের ইলেকট্রনিক্স ও গৃহ সরঞ্জাম সরবরাহের উদ্দেশ্যে যাত্রা করলেও দ্রুত সংস্থাটি বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে পড়ে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে