সুখী সংসার না বিচ্ছেদের সংঘাত! কেমন যাবে ‘রালিয়া’র বৈবাহিক জীবন

সুখী সংসার না বিচ্ছেদের সংঘাত! কেমন যাবে ‘রালিয়া’র বৈবাহিক জীবন

বিনোদন ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৩:০১ ১৭ এপ্রিল ২০২২  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

১৪ এপ্রিল ‘বাস্তু’তে পরিবার ও ঘনিষ্ঠ বন্ধুদের উপস্থিতিতে সাত পাকে বাঁধা পড়েছেন আলিয়া ও রণবীর। আলিয়া এখন মিসেস কাপুর। নবদম্পতির বিয়ের অনুষ্ঠানের বিভিন্ন ছবি সামনে আসতেই মুগ্ধ অনুরাগীদের দল। প্রায় ৫ বছর সম্পর্কের পর গাঁটছড়া বাঁধল ‘রালিয়া’ জুটি।

কিন্তু কেমন হবে নবদম্পতির সাংসারিক জীবন? কতটা সুখে সংসার করতে পারবে ‘রালিয়া’ জুটি? আগামীদিনে রণবীর-আলিয়ার বৈবাহিক জীবন কি কোনো বাধা আসতে চলেছে? তা নিয়ে শুরু হয়ে গিয়েছে আলাপ-আলোচনা। আর সেই আলোচনাতেই যেন খানিকটা ঘৃতাহুতি দিল সেলিব্রিটি জ্যোতিষীদের বক্তব্য।

জ্যোতিষীরা বলছেন, আলিয়া ভাট এবং রণবীর কাপুর উভয়ের কুণ্ডলীতে শুক্র একে অপরের বিপরীতে অবস্থিত। এই কারণে প্রেম এবং বিবাহে তারা উভয়ে একটি শক্তিশালী কর্মিক বন্ধন দেখতে পান। তাদের ব্যক্তিগত এবং পেশাগত জীবনের মধ্যে সেই মিষ্টি জায়গাটি খুঁজে বের করতে হবে।

আলিয়ার চাদ ধনু রাশিতে, আর রণবীরের চাঁদ মকর রাশিতে অবস্থিত। মানসিকতার কারণে এটি তাদের মধ্যে দীর্ঘমেয়াদে সংঘাত ডেকে আনতে পারে। তাদের বৈবাহিক সম্পর্কে উভয় দিক থেকে অনেক ভারসাম্যের প্রয়োজন হবে।

একজনের রাশি অন্তর্মুখী এবং উদ্বিগ্ন। অন্যদিকে অন্যজনের রাশি প্রাণবন্ত। ফলে নয়া এই দম্পতির তাদের স্বতন্ত্র প্রকৃতির দিক থেকে একে অপরের জন্য অনেক গ্রহণযোগ্যতা থাকতে হবে।

আলিয়ার রাশিচক্রের একটি উপাদান হিসাবে জল এবং রণবীরের রাশিচক্রের একটি উপাদান হিসাবে পৃথিবী পরামর্শ দেয় যে আবেগ, দৃঢ়তা এবং সরলতা তাদের পারস্পরিক বোঝাপড়া সহজ করে তুলবে। তাদের বিবাহে পারস্পরিক বোঝাপড়া ব্যতিক্রমী ও অন্যমাত্রা পাবে।

দম্পতির বিয়ের তারিখ ১৪ এপ্রিলে শুক্রের প্রভাব রয়েছে। তাই এটি অবশ্যই দম্পতির জীবনে সৌভাগ্য নিয়ে আসবে।

রণবীর ও আলিয়া কুণ্ডলী বিচার করে ২ জ্যোতিষী বলেন, এই বিয়ে রণবীর কাপুরের জীবনে একটি আনন্দদায়ক পরিবর্তন আনবে। বিয়ের পর তার ক্যারিয়ারে আরো অগ্রগতি হবে। আলিয়া ও রণবীর সেরা বন্ধু থাকবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/টিএএস