‘হাসির রাজা’র মেয়ের ভিডিও ভাইরাল, ভক্তদের মাঝে হারানোর শোক

‘হাসির রাজা’র মেয়ের ভিডিও ভাইরাল, ভক্তদের মাঝে হারানোর শোক

বিনোদন ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৮:৩৩ ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০   আপডেট: ১৮:৪১ ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০

দিলদারের মেয়ের বিয়ের ছবি

দিলদারের মেয়ের বিয়ের ছবি

চলচ্চিত্রের পর্দায় এমন একজন মানুষ ছিলেন, যার মুখ দেখা মাত্রই সবার মুখে হাসি ফুটে উঠত। কারো মনে যতই দুঃখ-কষ্ট থাকুক না কেন, তার ছবি দেখা মাত্রই সব হাঁসিতে পরিণত হত। সিনেমা জগতে তিনি সব সময় ছড়িয়ে দিতেন হাসির ফোয়ারা। হাসাতে হাসাতে দর্শকদের পেটে খিল ধরিয়ে দিতেন। এতো কিছু যার সম্বন্ধে বলা হচ্ছে তিনি আর কেউ নন, বাংলা চলচ্চিত্রের কিংবদন্তি কৌতুক অভিনেতা দিলদার।

মৃত্যুর পরও কোটি মানুষের মনে জায়গা করে আছেন এই কিংবদন্তি। ২০০৩ সালের ১৩ জুলাই এই ‘হাসির রাজা’ সবাইকে কাঁদিয়ে পাড়ি দেন না ফেরার দেশে। মৃত্যুর পর দিলদার অভিনীত ছবিগুলো সিনেমা হলে কিংবা টেলিভিশনের পর্দায় এখনো প্রচার করা হয়। যা দেখে দর্শকদের মাঝে তাকে হারানোর শোক এখনো তাড়া করে বেড়ায়। সত্যি বলতে তার মতো কেউ আর সিনেমা জগতে আসেনি।

শুধু হাসিয়েই নয়, তিনি নায়ক হিসেবেও অভিনয় করে সফল হয়েছেন। কোটি দর্শকের মতো প্রিয় ছিলেন সিনেমার মানুষদের কাছে। প্রযোজক, পরিচালক ও তারকারা পছন্দ করতেন তাকে। সেই প্রমাণ মিললো সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়া একটি ভিডিওতে। সেই ভিডিওটি দিলদারের মেয়ে মাসুমার বিয়ের।

জানা গেছে, ১৯৯৫ সালে দিলদারের বড় মেয়ে মাসুমা আক্তারের বিয়ে হয়। বিয়ের অনুষ্ঠানে হাজির ছিলেন ঢালিউড আলো করে রাখা একঝাঁক তারকা। তাদের মধ্যে আলমগীর, শাবানা, ইলিয়াস কাঞ্চন, শাবনূর, শাবনাজ, ওমর সানি, ডলি জহুর, হুমায়ুন ফরিদী, সাদেক বাচ্চু, মিজু আহমেদ, নূতনসহ অনেকেই ছিলেন।

এদিকে দিলদারের ছোট মেয়ে জিনিয়া আফরোজ ভিডিওটি নিয়ে বলেন, মগবাজারের একটি কমিউনিটি সেন্টারে আপুর বিয়ের অনুষ্ঠান হয়েছিল। খুব মজা হয়েছিল মনে আছে। মিডিয়ার অনেকেই পরিবারের সদস্যদের মতো এসেছিলেন।

শাবানা ম্যাডাম জর্দা খেয়ে খুব প্রশংসা করলেন। সেদিন টের পেয়েছিলাম সিনেমার মানুষ বাবাকে কতোটা ভালোবাসতেন। আজ এই ভিডিওটা মন খারাপ করিয়ে দিল। আবার অনেক স্মৃতিও মনে করিয়ে আনন্দ দিচ্ছে।

দিলদারের মেয়ের ভিডিওটি:-

 

ডেইলি বাংলাদেশ/এএ/টিএএস