খুলনার দুই প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দেয়াল চিত্র প্রদর্শনী

খুলনার দুই প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দেয়াল চিত্র প্রদর্শনী

খুবি প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১১:০৯ ১৮ জানুয়ারি ২০২২   আপডেট: ১০:৩৫ ১৯ জানুয়ারি ২০২২

খুলনার দুই প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষণীয় ও সৃজনশীল দেয়াল চিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছে

খুলনার দুই প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষণীয় ও সৃজনশীল দেয়াল চিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছে

খুলনার দুই প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষণীয় ও সৃজনশীল দেয়াল চিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছে। এ পদর্শনীর আয়োজন করে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের (খুবি) নগর ও গ্রামীণ পরিকল্পনা (ইউআরপি) ডিসিপ্লিন। শিশুদের মনজাগতিক বিকাশ ও বিশ্লেষণাত্মক চিন্তার সক্ষমতা বৃদ্ধিতে সেন্টার ফর সাসটেইনেবল, হেলথ দি অ্যান্ড লার্নিং সিটিস, অ্যান্ড নেইবারহুডস (এসএইচএলসি) এর এক আন্তঃদেশীয় গবেষণা প্রকল্পের আওতায় এই উদ্যোগ নেয়া হয়।

সোমবার (৩ জানুয়ারি) সকাল ১০টায় নগরীর ৫ নং ঘাট সংলগ্ন এরশাদ আলি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় এবং বেলা ১১টায় ইসলামপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে অনুষ্ঠানটির আয়োজন করা হয়। এসএইচএলসি প্রকল্পের ইন-কান্ট্রি কো-ইনভেস্টিগেটর এবং খুবির ইউআরপি ডিসিপ্লিনের অধ্যাপক তানজিল সওগাতের সভাপতিত্বে খুলনার জেলা প্রশাসক মো. মনিরুজ্জামান তালুকদার প্রধান অতিথি হিসেবে অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন। 

এসময় জেলা প্রশাসক খুবির এই উদ্যেগের প্রশংসা করে বলেন, শিশুদের সৃজনশীলতা বিকাশের অনুকূল পরিবেশ সৃষ্টিতে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। এসময় তিনি আরো বলেন কাউকে পেছনে ফেলে নয় বরং সবাইকে সাথে নিয়েই টেকসই উন্নয়নের লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে কাজ করে যেতে হবে।

প্রকল্প পরিচালক ড. শিল্পী রায়ের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে খুলনার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো. সাদিকুর রহমান খান এবং অন্যতম অতিথি হিসেবে এরশাদ আলী স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি সামসুল আলম মিয়া স্বপন উপস্থিত ছিলেন।

এরশাদ আলী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও ইসলামপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ঘুরে দেখা যায় স্কুলের সীমানাপ্রাচির, শ্রেণিকক্ষের দেয়াল, ছাদ ও মেঝেজুড়ে বিভিন্ন প্রাণিদের ছবি আঁকা হয়েছে। তার পাশেই বিভিন্ন বর্ণের নাম দিয়ে শিক্ষার্থীদেরকে ওই বর্ণের সাথে পরিচয় করিয়ে দেওয়া হচ্ছে। এছাড়া স্কুলের ছাদে বিভিন্ন ধরনের আকৃতির মাধ্যমে সৌরজগতের সকল গ্রহ, ছবির মাধ্যমে প্রকৃতিতে গাছের অবদান এবং পিরামিড একে প্রয়োজনীয় খাদ্যতালিকার চিত্র ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থী ঋতু আক্তার আনন্দ প্রকাশ করে বলেন, এখন থেকে আমরা খেলতে খেলতে শিখবো।

এসএইচএলসির এই আন্তঃদেশীয় গবেষণা প্রকল্পের আওতায় খুবির ইউআরপি ডিসিপ্লিন উন্নয়নশীল দেশগুলির স্বাস্থ্য, শিক্ষা এবং নগরায়নের সমস্যাগুলি চিহ্নিত করে সেগুলোর টেকসই সমাধান নিয়ে গত চার বছর কাজ করছে। এরই ধারাবাহিকতায় বাংলাদেশের খুলনার প্রাক-প্রাথমিক ও প্রাথমিক স্তরের শিশুদের স্কুলে সক্রিয় শিক্ষার পরিবেশ আরও উন্নত করার জন্য স্কুলে দেয়াল-চিত্রাঙ্কন এবং শিশুদের জন্য গত দুই মাস ব্যাপী চিত্রাঙ্কন কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়। কর্মশালা চলাকালীন  চিত্রকর্ম গুলিতে শিশুরা তাদের এলাকার স্বাস্থ্য, শিক্ষা এবং নগরায়নের সমস্যাগুলি তুলে ধরে। 

গবেষণা প্রকল্পের বাংলাদেশ অংশের প্রকল্প পরিচালক ও খুবির ইউআরপি ডিসিপ্লিনের সহযোগী অধ্যাপক ড. শিল্পী রায় জানান যে, স্কুল কার্যক্রমে শিশুদের সৃজনশীল অংশগ্রহণ এবং পারিপার্শ্বিক পরিবেশ সম্পর্কে তাদের মনস্তাত্ত্বিক মূল্যায়ন ভূয়সী প্রশংসাযোগ্য। এ ধরনের কার্যক্রম গবেষণা পরিমণ্ডলকে বিস্তৃত ও সমৃদ্ধ করবে। পাশাপাশি  ভবিষ্যৎ প্রজন্মের কাছে টেকসই নগরায়নের বার্তা পৌঁছে দিবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম