প্রবাসীদের বিনিয়োগ বাড়াতে বন্ড ছাড়বে সরকার

প্রবাসীদের বিনিয়োগ বাড়াতে বন্ড ছাড়বে সরকার

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১২:৫০ ২৭ অক্টোবর ২০২০   আপডেট: ২০:২৬ ২৭ অক্টোবর ২০২০

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

প্রবাসী বাংলাদেশিদের বিনিয়োগ বাড়াতে একাধিক বৈদেশিক মুদ্রায় বন্ড ছাড়ার পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে সরকার। এরইমধ্যে প্রবাসীদের পাঠানো রেমিট্যান্সের ওপর ২ শতাংশ হারে প্রণোদনাও দিচ্ছে সরকার।

সম্প্রতি এক বৈঠকে এসব বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়ার কথা জানিয়েছে অর্থ মন্ত্রণালয়।

বন্ডে বিনিয়োগ আকর্ষণে যেসব দেশে বাংলাদেশি শ্রমিক ও অভিবাসী বেশি আছে যেমন মধ্যপ্রাচ্য, মালয়েশিয়া, যুক্তরাজ্য, ইতালি এসব দেশে রোড-শো করা হবে।

অর্থ মন্ত্রণালয় জানায়, বর্তমানে প্রবাসী বাংলাদেশিদের জন্য ‘ওয়েজ আর্নার ডেভেলপমেন্ট বন্ড’, ‘ইউএস ডলার প্রিমিয়াম বন্ড’ ও ‘ইউএস ডলার ইনভেস্টমেন্ট বন্ড’ নামে তিন ধরনের বন্ড চালু রয়েছে। কিন্তু প্রচলিত তিনটি বন্ডই শুধুমাত্র ডলারে ক্রয় ও ভাঙানো যায়। এর পরিপ্রেক্ষিতে বন্ড তিনটি শুধু ডলারের হিসাবে সীমাবদ্ধ না রেখে পাউন্ড ও ইউরো মুদ্রায়ও চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে অর্থ বিভাগ।

মন্ত্রণালয় আরো জানায়, প্রবাসী বাংলাদেশিদের জন্য প্রচলিত বন্ড তিনটিতে কোনো বিনিয়োগসীমা নির্ধারণ নেই। এসব বন্ডে বিনিয়োগের বিপরীতে প্রায় ১৬ শতাংশ হারে সুদ বা মুনাফা পেয়ে থাকেন প্রবাসীরা। ফলে, এ খাতে সরকারের একটি বড় অংক ব্যয় হয়।

এমতাবস্থায় অভ্যন্তরীণ মুদ্রায় (টাকায়) প্রচলিত বন্ডের মতো প্রবাসীদের জন্য চালু বন্ড গুলোতেও সর্বোচ্চ বিনিয়োগসীমা থাকা দরকার বলে মনে করছে অর্থ বিভাগ। প্রাথমিকভাবে বন্ড তিনটির বিপরীতে বৈদেশিক মুদ্রায় সর্বোচ্চ এক কোটি টাকার সমপরিমাণ অর্থ বিনিয়োগ করা যাবে বলে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএইচ/এইচএন/আরএস