প্রতিপক্ষের হামলায় গর্ভেই মারা গেল শিশু, গ্রেফতার ৩

প্রতিপক্ষের হামলায় গর্ভেই মারা গেল শিশু, গ্রেফতার ৩

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ২১:৪১ ১৩ অক্টোবর ২০২১   আপডেট: ২১:৪২ ১৩ অক্টোবর ২০২১

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

নারায়ণগঞ্জ বন্দরে প্রতিপক্ষের হাত থেকে দুই মেয়েকে বাঁচাতে গিয়ে ছয় মাসের গর্ভের সন্তান হারিয়েছেন মাহমুদা বেগম নামে এক গৃহবধূ।

এ ঘটনায় বুধবার দুপুরে তিনজনকে গ্রেফতার করেছে বন্দর থানা পুলিশ। এর আগে সকালে গৃহবধূর স্বামী হাবিবুর রহমান বাদী হয়ে পাঁচজনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করেন।

গ্রেফতাররা হলেন, বন্দর থানার ১৯নং ওয়ার্ডের মদনগঞ্জ ইসলামপুর এলাকার হযরত আলী মিয়ার ছেলে হাসান ও তার স্ত্রী আইরিন ও ছোট ভাই হোসেন। পলাতক আসামিরা হলেন, একই এলাকার মৃত খাদেম আরি মিযার ছেলে হযরত আলী ও একই এলাকার মৃত গিয়াস উদ্দিন মিয়ার ছেলে জাহাঙ্গীর।

মদনগঞ্জ ফাঁড়ির এসআই মোশারফ হোসেন জানান, বন্দর থানার মদনগঞ্জ ইসলামপুর এলাকার মৃত আলী আকবর মিয়ার ছেলে হাবিবুর রহমানের সঙ্গে একই এলাকার হযরত আলী ও তার দুই ছেলে হাসান ও হোসেন গংদের র্দীঘদিন ধরে জায়গা সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছিল।

এর ধারাবাহিকতায় গত ৩০ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যা ৬টায় মুরগি নিয়ে তাদের তর্ক-বিতর্ক হয়। একপর্যায়ে হাবিবুরের দুই মেয়ে শাহিনূর ও তামান্নাকে মারধর করে। তাদের চিৎকারের শব্দ পেয়ে গর্ভবতী মাহমুদা বেগম তার  মেয়েদের বাঁচাতে গেলে তাকে ইট দিয়ে আঘাত করলে মাহামুদা বেগমের প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়। পরে বন্দর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে চিকিৎসক তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। সেখানে তিনি মৃত সন্তান প্রসব করেন।

বন্দর থানার ওসি দীপক চন্দ্র সাহা জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। মামলার পর অভিযুক্ত নারীসহ তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেফতারে চেষ্টা চলছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম