দৌড়ে এসে কুপিয়ে শিশুর মাথা আলাদা করে দিল যুবক

দৌড়ে এসে কুপিয়ে শিশুর মাথা আলাদা করে দিল যুবক

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১২:৫৫ ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২১  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

বিকেলে সহপাঠীদের সঙ্গে খেলছিল আট বছর বয়সী সুমন। হঠাৎ দৌড়ে এসে দা দিয়ে কুপিয়ে তার মাথা আলাদা করে দেন এক যুবক। এতে মুহূর্তেই লাশ হলো শিশুটি।

মঙ্গলবার বিকেলে ঘটনাটি ঘটেছে ময়মনসিংহের হালুয়াঘাট উপজেলার ধুরাইল ইউনিয়নের পূর্বধুরাইল কোদালিয়া খালেরপাড়ে। নিহত সুমন পূর্বধুরাইল গ্রামের জুয়েল মিয়ার ছেলে ও স্থানীয় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণির ছাত্র ছিল।

এ ঘটনায় ঘাতক শরিফ মিয়াকে আটক করেছে পুলিশ। একই সঙ্গে উদ্ধার করা হয়েছে হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত দা। শরিফ পূর্বধুরাইল গ্রামের শাহজাহানের ছেলে।

জানা গেছে, বিকেলে খালেরপাড়ে সহপাঠীদের নিয়ে খেলতে যায় সুমন। এ সময় হঠাৎ দৌড়ে এসে সুমনকে পানিতে ফেলে দেন শরীফ। পরে পানি থেকে তুলে দা দিয়ে কুপিয়ে শরীর থেকে মাথা আলাদা করে বাড়ি চলে যান তিনি। এ সময় সঙ্গে থাকা সুমনের সহপাঠী জুনাইদ ভয়ে দৌড়ে বাড়ি চলে যায়। পরে এলাকাবাসী টের পেয়ে ইউপি চেয়ারম্যানকে জানান।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মো. ওয়ারিছ উদ্দিন সুমন বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যাই। পরে এলাকাবাসীর সহযোগিতায় হত্যাকারীকে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়।

হালুয়াঘাট থানার ওসি মো. শাহিনুজ্জামান খান বলেন, এলাকাবাসীর সহযোগিতায় আমরা হত্যাকারীকে আটক করেছি। তার বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর