রফিকুলের ফোনে পর্নোর ছড়াছড়ি, বিয়ের কথা জানেই না পরিবার

রফিকুলের ফোনে পর্নোর ছড়াছড়ি, বিয়ের কথা জানেই না পরিবার

গাজীপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৩:৪৮ ৮ এপ্রিল ২০২১   আপডেট: ১৯:৪৮ ৮ এপ্রিল ২০২১

রফিকুল ইসলাম - ফাইল ছবি

রফিকুল ইসলাম - ফাইল ছবি

রাষ্ট্রবিরোধী ও উসকানিমূলক কথাবার্তা এবং বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির অভিযোগে গ্রেফতার হওয়া ‘শিশুবক্তা’ খ্যাত রফিকুল ইসলামের মোবাইল ফোনে একাধিক পর্নো ভিডিও পেয়েছে র‌্যাব।

বুধবার র‌্যাবের গোয়েন্দা শাখার পরিচালক লেফট্যানেন্ট কর্নেল খায়রুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, আটকের পর রফিকুল ইসলামের মোবাইল চেক করে একাধিক পর্নো ভিডিও পাওয়া গেছে। এছাড়া  তার মোবাইল ফোনের ম্যাসেঞ্জারে বিভিন্নজনকে পাঠানো আপত্তিকর কিছু ছবিও পাওয়া গেছে।

তিনি আরো বলেন, আসমা বেগম নামের এক তরুণীকে দুই বছর আগে বিয়ে করেছেন বলে দাবি করছেন রফিকুল ইসলাম। তবে তার এই বিয়ের কথা দুই পরিবারের কেউ-ই জানেন না। কেননা ওই তরুণীর সঙ্গে রফিকুলের সামাজিকভাবে বিয়ে হয়নি।

খায়রুল ইসলাম বলেন, আমরা পুরো বিষয়টি খতিয়ে দেখছি। তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার প্রক্রিয়া চলছে।

এর আগে, বুধবার ভোরে নেত্রকোণার পূর্বধলা উপজেলার লেটিরকান্দার নিজ বাড়ি থেকে রফিকুল ইসলামকে আটক করে র‌্যাব। তার বিরুদ্ধে গাজীপুরের গাছা থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

র‌্যাব জানিয়েছে, রফিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলাটির তদন্তভার র‌্যাবকে দিতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আবেদন করা হবে।

উল্লেখ্য, 'শিশুবক্তা' হিসেবে হঠাৎ পরিচিত হয়ে ওঠা রফিকুল ইসলাম কিছুটা অস্বাভাবিক খর্বকায়, বালকসুলভ চেহারা ও মেয়েদের মতো কণ্ঠস্বরের অধিকারী। তার বাড়ি নেত্রকোণায়। স্থানীয় স্কুলে শিক্ষাজীবন শুরু হলেও পরে তিনি মাদরাসায় ভর্তি হন ও নুরানি, হেফজ পড়েন। এরপর আট বছর কিতাবখানায় পড়েন। তার ভাষ্যমতে, ১৯৯৫ সালে তার জন্ম।

মাদরাসার ছাত্র থাকার সময় বিভিন্ন ওয়াজ মাহফিলে ওয়াজ করতেন রফিকুল। তিনি দাওরায়ে হাদিস পড়েছেন রাজধানীর জামিয়া মাদানিয়া বারিধারা মাদরাসায়। একই সঙ্গে তিনি বিএনপি-জামায়াত জোটের শরিক দল জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের অঙ্গসংগঠন যুব জমিয়তের নেত্রকোণা জেলার সহ-সভাপতি। নেত্রকোণার পশ্চিম বিলাশপুর সাওতুল হেরা মাদরাসার পরিচালক হিসেবেও দায়িত্ব পালন করে আসছেন 'শিশুবক্তা'।

ডেইলি বাংলাদেশ/টিআরএইচ/এইচএন/এআর