মুজিববর্ষে পিঠা উৎসব করলেন কাউন্সিলর টিপু

মুজিববর্ষে পিঠা উৎসব করলেন কাউন্সিলর টিপু

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ০০:১৬ ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১   আপডেট: ০০:১৮ ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১

মুজিববর্ষে পিঠা উৎসবে কাউন্সিলর আলী আকবর টিপু

মুজিববর্ষে পিঠা উৎসবে কাউন্সিলর আলী আকবর টিপু

হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী মুজিববর্ষে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী ও সুস্বাদু খাবার পিঠাপুলির সঙ্গে নতুন প্রজন্মকে পরিচিত ও স্বাদ গ্রহণের লক্ষ্যে খুলনায় অনুষ্ঠিত হলো পিঠা উৎসব। মুক্তিযুদ্ধের চেতনা চর্চাকেন্দ্র খুলনার ব্যানারে সিটি কর্পোরেশনের প্যানেল মেয়র ও ২৫ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আলী আকবর টিপুর পৃষ্ঠপোষকতায় শেষ হলো তিন দিনব্যাপী এ পিঠা উৎসব।  

খুলনার শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজ মাঠে সোমবার পিঠা উৎসবের শেষ দিনে খুলনা-২ আসনের এমপি শেখ সালাউদ্দিন জুয়েলের পক্ষ থেকে খুলনা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এমডি বাবুল রানা প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে গরীব ও অসহায় মানুষদের মাঝে কম্বল বিতরণ করেন।

খুলনা-২ আসনের এমপি শেখ সালাউদ্দিন জুয়েলের পক্ষ থেকে খুলনা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এমডি বাবুল রানা প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে গরীব ও অসহায় মানুষদের মাঝে কম্বল বিতরণ করেন

এদিকে শনিবার কেসিসির প্যানেল মেয়র ও ২৫ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আলী আকবর টিপু পিঠা উৎসবের উদ্বোধন করেন। প্রায় ৭০-৮০টি স্টলে চলে পিঠা বেচা-কেনা। প্রতিদিন সন্ধ্যায় ছিল সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের ব্যবস্থা। এ ছাড়াও প্রতিদিন প্রায় ৫০০ বাচ্চার জন্য ফ্রিতে চকলেট, চিপস এমন হরেক রকমের খাবারের ব্যবস্থা রেখেছিলেন কাউন্সিলর টিপু।

পিঠা উৎসবে আগত অতিথিদের সঙ্গে কাউন্সিলর আলী আকবর টিপু

পিঠা উৎসব সম্পর্কে মানবিক কাউন্সিলর টিপু বলেন, হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্য আজ আমরা একটি স্বাধীন রাষ্ট্র পেয়েছি। একটা পতাকা, একটা মানচিত্র পেয়েছি। মহানায়কের জন্মশত বার্ষিকী ‘মুজিববর্ষ’কে রাঙাতেই চেষ্টা করেছি মাত্র। আমাদের দেশে থেকে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্য পিঠাপুলি হারিয়ে যাচ্ছে। নতুন প্রজন্মকে এই ঐতিহ্যের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিতে এবং এর স্বাদ গ্রহণের ব্যবস্থা করতেই পিঠা উৎসবের আয়োজন। পিঠা উৎসব ছাড়াও মুজিববর্ষে ক্রিকেট, ফুটবল ও ক্যারম টুর্নামেন্টের আয়োজন করেছিলাম। সামনে আরো অনেক কিছু করার পরিকল্পনা আছে।

মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণের সময় অসহায় মানুষের মাঝে ভালোবাসা বিতরণ

মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণের সময় মানুষের ঘরে ঘরে গিয়ে সাহায্য পৌঁছে দিয়েছেন টিপু। তাই মানুষ তাকে ভালোবেসে মানবিক কাউন্সিলর বলে ডাকেন। ২৫ নং ওয়ার্ডের প্রায় ৬ হাজার মানুষের দিকে ভালোবাসার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন কাউন্সিলর টিপু। এছাড়াও রাত-বিরাত শহরের বিভিন্ন জায়গায় শেখ হাসিনার ভালোবাসা পৌঁছে দিতে কাজ করেছেন তিনি।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএস