অন্তর্দ্বন্দ্বে তছনছ কালীগঞ্জ জাতীয় পার্টি

অন্তর্দ্বন্দ্বে তছনছ কালীগঞ্জ জাতীয় পার্টি

কালীগঞ্জ (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৭:৩০ ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০   আপডেট: ১৭:৩৮ ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে এক সময় জাতীয় পার্টির রাজনীতি ছিল চাঙ্গা। তৃণমূলের কর্মীদের চাঙ্গা রাখতে বড় ভূমিকা রেখেছেন তৎকালীন কেন্দ্রীয় নেতা খালেদুর রহমান টিটো ও কালীগঞ্জের আব্দুস সাত্তার মিয়া। কিন্তু খালেদুর রহমান টিটোর দলবদল ও আব্দুস সাত্তার মিয়ার মৃত্যুর পর নড়বড়ে হয়ে পড়েছে কালীগঞ্জ জাতীয় পার্টি। নিজেদের মধ্যেই দ্বন্দ্বে জড়িয়ে পড়েছেন নেতা-কর্মীরা।

বর্তমানে কালীগঞ্জে কাগজে-কলমে জাতীয় পার্টির কমিটি থাকলেও নেই কোনো সাংগাঠনিক তৎপরতা। করোনা পরিস্থিতিতেও মানুষের পাশে দাঁড়াতে দেখা যায়নি নেতা-কর্মীদের। অন্তর্দ্বন্দ্বে তছনছ হয়ে গেছে কালীগঞ্জ জাতীয় পার্টির রাজনীতি। দিনদিন দলবিমুখ হয়ে পড়ছে তৃণমূলের কর্মীরা।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক কর্মী জানান, কেন্দ্রীয় নীতি নির্ধারক মহলে গ্রুপিং-লবিং-সিদ্ধান্তহীনতা এমনকি গুরুত্বপূর্ণ পদে থাকা নেতাদেরদের পরস্পর রশি টানাটানিতে হতাশ হয়ে পড়েছে মাঠ পর্যায়ের নেতা-কর্মীরা। অনেকেই জাতীয় পার্টি ছেড়ে যোগ দিয়েছে অন্য দলে।

উপজেলা জাতীয় পার্টির সিনিয়র সহ-সাধারণ সম্পাদক এনামুল হক সিদ্দিক জানান, জাতীয়পার্টি দেশের সব শ্রেণিপেশার মানুষের দল। কিন্তু কেন্দ্রীয় নেতাদের বিভাজনে ক্রমশ দুর্বল হয়ে পড়েছে দলের ভিত। অভ্যন্তরীণ কোন্দল তছনছ করে দিয়েছে কালীগঞ্জ জাতীয় পার্টির রাজনীতি।

কালীগঞ্জ পৌর জাতীয় পার্টির সভাপতি বাবলুর রহমান জানান, এক সময় এখানে জাতীয় পার্টির জৌলুস ছিলো। উপজেলা জাতীয় পার্টির সাবেক সভাপতি আব্দুস সাত্তার মিয়ার মৃত্যুর পর দলে নেতৃত্ব সংকট শুরু হয়। কেন্দ্রীয় নীতি নির্ধারকদের লবিং-গ্রুপিং ও সিদ্ধান্তহীনতায় দল এখন দুঃসময় পার করছে। শিগগিরই এ পরিস্থিতি থেকে পরিত্রাণ পেতে হবে। নইলে কালীগঞ্জে জাতীয় পার্টির অস্তিত্ব থাকবে না।

উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি এমদাদুল ইসলাম বাচ্চু জানান, কালীগঞ্জ জাতীয় পার্টির অনেক নেতা স্বার্থসিদ্ধির জন্য দুঃসময়ে দলকে ফেলে অন্য দলে ভিড়েছে। এ কারণে উপজেলা জাতীয় পার্টি নেতৃত্বহীন হয়ে পড়েছে।

তিনি আরো জানান, বর্তমানে অভ্যন্তরীণ নানা সংকটে জর্জরিত হয়ে আছে জাতীয় পার্টি। এর মধ্যেও অনেক নেতা ব্যক্তিগত উদ্যোগে উপজেলার মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন। করোনায় ঘরবন্দি মানুষের কাছে পৌঁছে দিয়েছেন ত্রাণ ও আর্থিক সহায়তা। দুঃসময় আজীবন থাকবে না। শিগগিরই তৃণমূল নেতা-কর্মীদের নিয়ে ঐক্যবদ্ধভাবে রাজনীতিতে ফিরবে কালীগঞ্জ জাতীয় পার্টি।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর/এইচএন