হত্যার দুইদিন পর মিলল স্ত্রীর মরদেহ, স্বামী উধাও

হত্যার দুইদিন পর মিলল স্ত্রীর মরদেহ, স্বামী উধাও

গাজীপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৩:৫৮ ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০  

বাসন থানা, গাজীপুর

বাসন থানা, গাজীপুর

গাজীপুরে পারিবারিক কলহের জেরে স্বামীর বিরুদ্ধে স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। দুইদিন পর দুর্গন্ধের কারণে হত্যাকাণ্ডটি প্রকাশ্যে আসে। ঘটনার পর পলাতক রয়েছেন অভিযুক্ত স্বামী।

নিহত মুনশেফা আক্তার রংপুরের পীরগঞ্জ থানার শিবপুরের দুদু মিয়ার স্ত্রী। তারা ভোগড়া বাইপাসের পেয়ারাবাগান এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকতেন।

রোববার সকালে নিজ বাসা থেকে মুনশেফার মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এর আগে, শুক্রবার রাতে তাকে হত্যা করেন স্বামী দুদু মিয়া।

নিহতের ভগ্নিপতি আশিক মিয়া জানান, স্বামী-স্ত্রী দুজনই ভোগড়া বাইপাস এলাকায় কাঁচামালের আড়তে কাজ করতেন। কয়েকদিন ধরে পারিবারিক নানা বিষয় নিয়ে দুইজনের মধ্যে ঝগড়া হয়। শুক্রবার সন্ধ্যায় মাগরিবের নামাজ পড়ার জন্য ওজু করতে যান মুনশেফা। ওজু করতে দেরি হওয়ায় দুইজনের মধ্যে ফের ঝগড়া হয়। বিষয়টি রাতেই পারিবারিকভাবে মীমাংসা করা হয়। এরপর সবাই ঘুমিয়ে পড়লে রাতের কোনো এক সময় মুনশেফাকে হত্যার পর পালিয়ে যান দুদু মিয়া। রোববার সকালে ঘর থেকে দুর্গন্ধ বের হলে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়। পরে পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়।

বাসন থানার ওসি রফিকুল ইসলাম চৌধুরী জানান, নিহতের গলায় দাগ রয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, মুনশেফাকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। ময়নাতদন্ত শেষে বিস্তারিত জানা যাবে। পলাতক দুদু মিয়াকে খোঁজা হচ্ছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর