৯৯৯-এ ফোন পেয়ে ধর্ষককে আটক করলো পুলিশ

৯৯৯-এ ফোন পেয়ে ধর্ষককে আটক করলো পুলিশ

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ০৩:০০ ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

সুনামগঞ্জের দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলায় ধর্ষণের শিকার হয়েছে ১৩ বছরের এক কিশোরী। বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে উপজেলার জয়কলস ইউপির ডুংরিয়া শিবপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

ওই ঘটনায় রাত ১০টার দিকে ৯৯৯-ফোন পেয়ে পুলিশ অভিযুক্ত মো. সাগর মিয়াকে আটক করেছে। আটক মো. সাগর মিয়া শিবপুর(ফার্মবাড়ি) গ্রামের মো. আরব আলীর ছেলে। 

পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ডুংরিয়া শিবপুর গ্রামে নিজ বাড়িতে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দেয়ার জন্য কিশোরী বের হয়। এ সময় একই গ্রামের মো. সাগর মিয়া কিশোরীর মুখে ওড়না চেপে একটি বাগানে নিয়ে ধর্ষণ করে পালিয়ে যান।

বাড়ির লোকজন অনেক খোজাঁখুজি করে না পেয়ে পার্শ্ববর্তী ওই বাগানে গিয়ে কিশোরীকে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখেন। পরে তাকে উদ্ধার করে থানায় নিলে পুলিশ তাকে জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা করে।

কিশোরীর মা কান্নাজড়িত কণ্ঠে জানান, আমি অন্যের বাড়িতে কাজ করি এবং স্বামী অসুস্থ থাকায় মেয়ে একা প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে বের হয়। সে সুযোগে সাগর মিয়া মেয়েকে ধর্ষণ করে। আমি তার উপযুক্ত বিচার চাই। 

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মো. আলা উদ্দিন জানান, মেয়ের পরিবার থেকে ৯৯৯-এ ফোন করে ধর্ষণের ঘটনা জানায়। পরে অভিযুক্ত সাগর মিয়াকে আটক করা হয়। মেয়েটিকে পরীক্ষার জন্য সুনামগঞ্জ জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হয়েছে। 

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার ওসি মো. হারুণ অর রশিদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, অভিযুক্তকে আটক করা হয়েছে। মেডিকেল রিপোর্টের পর বিস্তারিত জানা যাবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম