Alexa হৃৎপিণ্ড ছাড়াই ৫৫৫ দিন বেঁচে থাকার গল্প!

হৃৎপিণ্ড ছাড়াই ৫৫৫ দিন বেঁচে থাকার গল্প!

আঁখি আক্তার ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৫:৪৬ ৪ জুলাই ২০১৯  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

হৃৎপিণ্ড এমন একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ যা ছাড়া কোনো প্রাণীরই বেঁচে থাকা সম্ভব নয়। অথচ এই ধারণাকে ভুল প্রমাণ করে হৃৎপিণ্ড ছাড়াই ৫৫৫ দিন কাটিয়ে দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের মিশিগানের বাসিন্দা ২৫ বছরের তরুণ স্ট্যান লারকিন।

২০১৪ সালের নভেম্বরে লারকিনের দেহ থেকে তার হৃৎপিণ্ড অপসারণ করা হয়। তবে ওই সময় হৃৎপিণ্ড প্রতিস্থাপনের জন্য কোনো দাতাকে পাওয়া যায়নি। তাই লারকিনকে যাতে দীর্ঘসময় হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে থাকতে না হয়, সেজন্য চিকিৎসকরা তার পিঠে একটি ধূসর রঙের ব্যাগ চাপিয়ে দেন। আর এই ব্যাগটিই ছিল লারকিনের জীবন-মরণ। অর্থাৎ এই ব্যাগে থাকা ডিভাইসটি ছিলো কৃত্তিম হৃৎপিণ্ড, যা লারকিনের বুকের সঙ্গে সংযুক্ত ছিল। এর মাধ্যমেই সে শ্বাসপ্রশাসের কাজটি চালাতো। পরে লারকিনের দেহে হৃৎপিণ্ড প্রতিস্থাপন করেন ইউনিভার্সিটি অব মিশিগান ফ্রাঙ্কেল কার্ডিওভাস্কুলার সেন্টারের চিকিৎসকরা। এতদিন ধরে কৃত্তিম হৃৎপিণ্ড নিয়ে জীবনযাপন করার কথা শুনলে অনেকে হয়তো আঁতকে উঠবেন। কিন্তু এই ভয় তাড়িয়েই এগুতে হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এএ