স্ত্রীকে বাঁচাতে গিয়ে মাতালের ছুরিকাঘাতে লাশ হলেন কৃষক

স্ত্রীকে বাঁচাতে গিয়ে মাতালের ছুরিকাঘাতে লাশ হলেন কৃষক

শেরপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ০২:১৫ ২১ মে ২০২০  

গণধোলাইয়ের পর তিন মাতালকে পুলিশে সোপর্দ করে স্থানীয়রা

গণধোলাইয়ের পর তিন মাতালকে পুলিশে সোপর্দ করে স্থানীয়রা

শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে মাতালের ছুরিকাঘাতে সুনীল মারাক নামে এক কৃষক নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছে আরো দুইজন।

বুধবার রাতে উপজেলার সীমান্তবর্তী গারো পাহাড়ের কালাপানি মোড় এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত সুনীল মারাক উপজেলার পূর্ব সমশ্চুড়া গ্রামের বাসিন্দা।

নালিতাবাড়ী থানার ওসি বছির আহমেদ বাদল জানান, স্ত্রী, সন্তান ও মেয়ের জামাইকে নিয়ে বুরুঙ্গা কালাপানি এলাকা থেকে বোরো ধান কেটে ভ্যানে বাড়ি ফিরছিলেন সুনীল। পথে বিপরীত থেকে আসা মদ্যপ তিন মোটরসাইকেল আরোহী ভ্যানটির সঙ্গে ধাক্কা খেয়ে সড়কে পড়ে যান। এ সময় সুনীলের স্ত্রী দীবাশ মারাকে মারধর শুরু করেন ওই তিন মাতাল। পরে স্ত্রীকে বাঁচাতে গেলে তারা সুনীলকে ছুরিকাঘাত করেন। এতে ঘটনাস্থলেই তিনি নিহত হন।

ওসি আরো জানান, এ ঘটনায় তিন মাতালকে গণধোলাই দিয়ে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে স্থানীয়রা। তারা হলেন- নেত্রকোনার ধোবাউরার মুন্সিরহাট এলাকার বাসিন্দা পিরেন্দ্র সাংমা ও জামালপুরের স্বপন। তবে আরেকজনের পরিচয় জানা যায়নি।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর