104053 সিলেটের ভোলাগঞ্জ, এ যেন আরেক বিছনাকান্দি!
Best Electronics

সিলেটের ভোলাগঞ্জ, এ যেন আরেক বিছনাকান্দি!

সিদরাতুল সাফায়াত ড্যানিয়েল ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১১:৫০ ১২ মে ২০১৯   আপডেট: ১২:০৭ ১২ মে ২০১৯

পাহাড় আর সবুজে ঘেরা ভোলাগঞ্জ। ছবি : নিয়াজ আহমেদ

পাহাড় আর সবুজে ঘেরা ভোলাগঞ্জ। ছবি : নিয়াজ আহমেদ

সবুজে ঘেরা শান্ত পাহাড়, তার সঙ্গে মিশেছে নীল আকাশ। শরৎ মৌসুম না, তবুও আকাশের গায়ে ছোপছোপ শ্বেতশুভ্র মেঘ। আমাদের ট্রলার এগিয়ে চলেছে প্রকৃতির এই অপার সৌন্দর্য উপভোগ করতে। পরিবেশের এই সম্মোহন হাতছানির মধ্যে বোমা মেশিনের গর্জন, অবশ্য সেই গর্জন মিশে যায় রোপওয়ের সৌন্দর্যে।

চারদিকে পাথর আর পাথর, এখানে সব পাথর সাদা রঙা। পাথর তোলার প্রচুর নৌকা চোখে পড়ল, তবে দর্শনার্থী পূণ্য। নির্জন সাদা পাথরের অসাধারণ এলাকায় আমরা পা রাখি। সামনে সবুজ পাহাড়, পাশে পাহাড় থেকে গড়িয়ে পড়া প্রচণ্ড স্রোতের স্বচ্ছ শীতল জল, আর সে জল থেকে গড়িয়ে নামা সাদা পাথর। কতটা অপরূপ, কতটা মনোমুগ্ধকর তা বলে বোঝানোর নয়। মন ভোলানো মনোমুগ্ধকর জায়গাটির নাম ‌‘ভোলাগঞ্জ’।

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার ভোলাগঞ্জ দেশের সর্ববৃহৎ পাথর কোয়ারির অবস্হান। মেঘালয় রাজ্যের খাসিয়া জৈন্তিয়া পাহাড় থেকে বর্ষাকালে ঢল নামে। ধলাই নদীতে ঢলের সঙ্গে নেমে আসে পাথর। পরবর্তী বর্ষার আগমন পর্যন্ত চলে পাথর আহরণ। এই সাদা পাথরের দেশ দেখতে আমরা ৮ জন সিলেট নগরীর আম্বরখানা থেকে সিএনজিতে উঠি ভোলাগঞ্জ ১০ নম্বর এল সি ঘাটের উদ্দেশ্যে। ভাড়া জনপ্রতি ১৪০ টাকা। ঠিক ১ঘণ্টা ৩০ মিনিট পর আমরা ভোলাগঞ্জ নৌকা ঘাটে পৌঁছে যাই। ঘাট থেকে ৬০০ টাকায় যাওয়া আসা এবং নিজেদের ইচ্ছেমতো সময় নিয়ে অবস্থান করার কথা বলে চলে যাই জিরো পয়েন্টে।

সাদা পাথরের জন্য বিখ্যাত এই জায়গাটি

সেখানে গিয়ে পাওয়া গেল কয়েকজনকে। তারা পর্যটক না, স্থানীয় মানুষ। তারা জানান, প্রতিবছর বর্ষাকালে জৈন্তিয়া পাহাড় থেকে সাদা পাথর গড়িয়ে আসে ধলাই নদীতে। তাই এই নদীতে পাথরের বিপুল মজুদ। এই পাথর দিয়ে পঞ্চাশ বছর চালানো যাবে- এই হিসাব ধরে ১৯৬৪-১৯৬৯ সাল পর্যন্ত সময়কালে সোয়া দুই কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মাণ করা হয় ভোলাগঞ্জ রোপওয়ে প্রকল্প। সাদা পাথর ও তার স্বচ্ছ জল দেখতে আসা দর্শনার্থীদের কাছে ধলাই নদী ও খাসিয়া-জৈন্তা পাহাড় আর সীমান্ত এলাকার মতোই সমান জনপ্রিয় রোপওয়েটি। যদিও ১২ বছর ধরে রোপওয়েটির বেকার জীবর-যাপণ।

মজার ব্যাপা হল, এলাকাটি দেখতে অনেকটা ব-দ্বীপের মতো। ধলাই নদী বাংলাদেশ অংশে প্রবেশ করে দু’ভাগে বিভক্ত হয়ে প্লান্টের চারপাশ ঘুরে আবার একীভূত হয়েছে। এ কারণেই স্থানটি পর্যটকদের কাছে এত আকর্ষণীয়।

শুষ্ক মৌসুমে এলে দেখা যায় পাথর আহরণের দৃশ্য। প্রধানত গর্ত খুঁড়ে পাথর উত্তোলন করা হয়। ৭/৮ ফুট নিচু গর্ত খোঁড়ার পর কোয়ারিতে পানি উঠে যায়। পানি উঠে গেলে শ্যালো মেশিন দিয়ে কোয়ারির পানি অপসারণ করে শ্রমিকরা পাথর উত্তোলন করে। এর বাইরে ‘শিবের নৌকা’ পদ্ধতিতে পাথর উত্তোলন করা হয়। এ পদ্ধতিতে পাথর উত্তোলনের উপায় হচ্ছে-একটি খালি নৌকায় শ্যালো মেশিনের ইঞ্জিন লাগানো হয়। ইঞ্জিনের পাখা পানির নিচে ঘুরতে থাকে। পাখা অনবরত ঘুরতে ঘুরতে মাটি নরম হয়ে পাথর বেরোতে থাকে। সংশি­ষ্টরা ঝঁকির সাহায্যে পাথর নৌকায় তুলে। এ পদ্ধতিতে সহস্রাধিক শ্রমিক পাথর উত্তোলন করে থাকে। এ পদ্ধতিতে পাথর উত্তোলনের দৃশ্যও খুব উপভোগ্য।

সব মিলিয়ে প্রায় দু’ঘণ্টা এসব দৃশ্য দেখে ফিরলাম ভোলাগঞ্জ ঘাটে। সেখানে ভালো কোনো রেস্টুরেন্ট না থাকায় ছোট দোকানগুলোতে চা-কেক খেয়েই দুপুর ২টায় সিএনজিতে চলে আসি আম্বরখানাতে। এসেও জায়গাটির রেশ কাটলো না, কী এক স্বর্গীয় অনুভূতি পেলাম!

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে

Best Electronics
শিরোনামজঙ্গিবাদ থেকে মুক্ত রেখে দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়ন চায় সরকার: প্রধানমন্ত্রী শিরোনামপরিবেশ আইন-লঙ্ঘন: উত্তরাঞ্চলের ১৯ ইটভাটার মালিকের বিরুদ্ধে মামলা করার নির্দেশ হাইকোর্টের শিরোনামকেমিক্যাল ব্যবহার বন্ধে সারা দেশের ফলের বাজারে যৌথ কমিটির তদারকির নির্দেশ হাইকোর্টের শিরোনামরূপপুর পরমাণু বিদ্যুৎকেন্দ্রের আবাসিক প্রকল্পে দুর্নীতির ঘটনা তদন্ত চেয়ে হাইকোর্টে করা রিটের শুনানি আজ শিরোনামবিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের হজ ফ্লাইটের টিকিট বিক্রি শুরু শিরোনামসংরক্ষিত আসনে বিএনপির মনোনয়ন জমা দিলেন রুমিন ফারহানা শিরোনামরাঙামাটিতে যুবলীগ নেতাকে গুলি করে হত্যা শিরোনামচট্টগ্রামে বন্দুকযুদ্ধে ছিনতাইকারী নিহত শিরোনামরাজধানীতে বন্দুকযুদ্ধে দুই ছিনতাইকারী নিহত শিরোনামআজ ইফতার: সন্ধ্যা ৬টা ৪০ মিনিটে