শিশুকে ধর্ষণের চেষ্টা, অভিযুক্তের চাচার দাবি আদর করেছে মাত্র  

শিশুকে ধর্ষণের চেষ্টা, অভিযুক্তের চাচার দাবি আদর করেছে মাত্র  

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ২০:২৮ ৬ জুন ২০২০   আপডেট: ২০:৩৮ ৬ জুন ২০২০

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

টাঙ্গাইলের নাগরপুরে ১০ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। নির্জন বাড়িতে একা পেয়ে পার্শ্ববর্তী এক বিবাহিত যুবক তাকে ধর্ষণের চেষ্টা করে।

এ ঘটনায় শিশুটির মা থানায় অভিযোগ করলেও ন্যায় বিচার থেকে বঞ্চিত হওয়ার আশঙ্কা করছে ভুক্তভোগী শিশুর অসহায় পরিবার। 

বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার চরাঞ্চল দপ্তিয়র ইউপির খাষ ভূগোলহাট গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। 

পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ৪৬ নম্বর খাষ ভূগোলহাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ  শ্রেণির ওই শিশু ছাত্রীকে তার মা বাড়িতে একা রেখে বাড়ির পাশে জমিতে ধান শুকাতে যায়। এই সুযোগে পার্শ্ববর্তী কাজী খলিলুর রহমানের লম্পট ছেলে আবদুল্লাহ আল মামুন ঘরে ঢুকে তাকে ঝাপটে ধরে ধর্ষণের চেষ্টা করে। এ সময় শিশুটি চিৎকার করলে মামুন তাকে ছেড়ে দিয়ে পালিয়ে যায়।

স্থানীয় দুলাল, সাদ্দাম, আতোয়ার ও মিজানুর রহমান জানান, আবদুল্লাহ আল মামুন তার চরিত্রগত ত্রুটির কারণে একাধিক বিয়ে করার পরও কোনো স্ত্রীর সঙ্গে সে সংসার করতে পারেনি। 

এ ব্যাপারে মামুনের সেল ফোনে একাধিকবার চেষ্টা করেও তার সঙ্গে কথা বলা সম্ভব হয়নি। তবে মামুনের চাচা মোসলেম উদ্দিন জানান, তার ভাতিজা আল মামুন শিশুটিকে ধর্ষণের কোনো চেষ্টা করেনি আদর করেছে মাত্র।

নাগরপুর থানার এসআই মামুন মৃধা বলেন, ডাক্তারি সনদ না পাওয়ার কারণে অভিযোগটি নথিভুক্ত করতে বিলম্ব হচ্ছে। তবে তদন্ত সাপেক্ষে দ্রুত আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ ব্যাপারে টাঙ্গাইল জজ কোর্টের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) এস আকবর খান জানান, ধর্ষণচেষ্টা মামলা করতে ডাক্তারি সনদের প্রয়োজন নেই।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ