Alexa শরীয়তপুরে থামছে না মা ইলিশ নিধন 

শরীয়তপুরে থামছে না মা ইলিশ নিধন 

শরীয়তপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৬:২২ ১৯ অক্টোবর ২০১৯  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

শরীয়তপুরে নিষেধাজ্ঞা অম্যান্য করে মা ইলিশ শিকারের অভিযোগে ৬৪৪ জেলেকে আটক করেছে প্রশাসন ও পুলিশ। এর মধ্যে ৫৭০ জনকে কারাদণ্ড দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। তবুও থামছে না মা ইলিশ নিধন। 

সরেজমিনে দেখা যায়, পদ্মা নদীর জাজিরার বিলাশপুর, দুর্বাডাঙ্গা বাজার, কাজিয়ারচর পদ্মা নদীর পাড়ে ইলিশের নিয়মিত হাট বসছে। প্রশাসন ও পুলিশের চোখ ফাঁকি দিয়ে শতশত ইঞ্জিন নৌকায় মা ইলিশ শিকার করছে জেলেরা। দ্রুত সেই সব মাছ হাটে রেখে আবারো নদীতে যাচ্ছে তারা। হাটগুলোতে ইলিশের দাম কম থাকায় ভিড় করছে ক্রেতারা। সেই সব হাট থেকে এক হালি ইলিশ ৫০০ থেকে ৬০০ টাকায় কেনা যাচ্ছে। 

শরীয়তপুর জেলা মৎস্য কর্মকর্তা বিশ্বজিৎ বৈরাগী বলেন, প্রতিদিন পদ্মা নদীতে অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। ৯ অক্টোবর থেকে ১৯ অক্টোবর পর্যন্ত জেলার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৬৪৪ জেলেকে আটক করা হয়েছে। এর মধ্যে ৫৭০ জেলেকে কারাদণ্ড ও ৭৪ জেলেকে অর্থদণ্ড দেয়া হয়েছে। ইলিশ নিধনের বিরুদ্ধে আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। জনবল কম হওয়ায় একদিকে অভিযান পরিচালনা করলে অন্যদিকে জেলেরা নদীতে নেমে পড়ে। 

জেলা মৎস্য কার্যালয়ের তথ্যানুযায়ী, প্রজনন মৌসুম হিসেবে ৯ থেকে ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত ইলিশ শিকার, পরিবহন, কেনাবেচার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে সরকার। এ সময়ে মাছ শিকার বন্ধে সরকারিভাবে জেলেদের খাদ্য সহায়তা দেয়া হচ্ছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ