‘রেড লিস্টে’ নাম উঠল ২০ লাখ টাকা কেজির হিমালয়ান ভায়াগ্রার

‘রেড লিস্টে’ নাম উঠল ২০ লাখ টাকা কেজির হিমালয়ান ভায়াগ্রার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৫:১৪ ১৬ জুলাই ২০২০   আপডেট: ১৫:৩৬ ১৬ জুলাই ২০২০

ছবি:  হিমালয়ান ভায়াগ্রা

ছবি: হিমালয়ান ভায়াগ্রা

অত্যন্ত দামি প্রজাতির একটি ফাঙ্গাস যা হিমালয়ান ভায়াগ্রা নামে পরিচিত। আন্তর্জাতিক বাজারে এর দাম কেজি প্রতি ২০ লাখ টাকা। আর এবার তা বিলুপ্ত প্রায় এই প্রজাতির ফাঙ্গাসটির নাম ‘রেড লিস্টে’ যুক্ত হল।

ইন্টারন্যাশনাল ইউনিয়ন ফর কনজারভেশন অফ নেচার (আইইউসিএন)র বরাত দিয়ে টাইমস অফ ইন্ডিয়ার প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, ওই বিশেষ প্রজাতির ভায়গ্রার পরিমাণ ১৫ বছরে ৩০ শতাংশের কাছাকাছি কমে গিয়েছে। তবে শুধু এটিই নয় আরো বেশ কিছু জীব বৈচিত্রে ঘাটতি তৈরি হয়েছে। যা যথেষ্ট উদ্বেগের। মূলত হিমালয়ের পার্বত্য অঞ্চলে কমে গিয়েছে বিশেষ প্রজাতির এই ধরনের জীব বৈচিত্র।

জানা গেছে, এই ফাঙ্গাসকে ‘কীরা জরি’নামেও ডাকা হয়। এগুলো মূলত উত্তরাখণ্ডে পাওয়া যায়। তার সংখ্যা কমেছে যথেষ্ট।

বিশেষজ্ঞদের মতে, এই সব ফাঙ্গাসকে ‘রেড লিস্টে’ যোগ করার একটাই কারণ যাতে সরকার এই বিষয়গুলো দেখভাল করতে পারে। আরো সতর্কভাবে খেয়াল রাখতে পারে। এই ফাঙ্গাস মূলত চিন, ভুটান, নেপালে পাওয়া গেলেও ভারতের একমাত্র উত্তরাখণ্ডেই পাওয়া যায়। কিন্তু ক্রমেই কমছে তার সংখ্যা।

তবে এই লাল তালিকা ভুক্ত করাতে সমস্যা হবে উত্তরাখণ্ডের একাধিক মানুষের। কারণ সেখানকার গ্রামের বাসিন্দারা দিন গুজরান করে এই ফাঙ্গাস সংগ্রহের মাধ্যমেই। ফলে লাল তালিকাভুক্ত হওয়াতে যথেষ্ট অসুবিধার মধ্যে পড়বে তারা। স্থানীয় বাজারে প্রায় কেজি প্রতি ১০ লক্ষ টাকাতে বিক্রি কড়া হয় এই ফাঙ্গাস।

আর আন্তর্জাতিক বাজারে দাম আরো বাড়ে। আর সেই কারণেই মনে করা হচ্ছে লাল তালিকাভুক্ত করাতে যেমন এই ফাঙ্গাস পরিচর্যা যেরকম কড়া হবে সেরকম অসুবিধার মধ্যে পড়তে হবে সাধারণ মানুষদের।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএস