Alexa রায়পুরে পানিবন্দী ১০ ইউপির মানুষ

বুলবুলের প্রভাব

রায়পুরে পানিবন্দী ১০ ইউপির মানুষ

রায়পুর (লক্ষ্মীপুর) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৫:৪০ ১১ নভেম্বর ২০১৯  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে টানা বৃষ্টিতে মেঘনা নদীর পানি বেড়েছে। প্লাবিত হয়েছে নদী তীরবর্তী নিম্নাঞ্চল।

শনিবার থেকেই পানিবন্দী হয়ে আছে উপজেলার উত্তর চরবংশী, দক্ষিণ চরবংশী, চর আবাবিল, চর মোহনা ইউপির বেশ কয়েকটি গ্রামের মানুষ। সোমবার দুপুর পর্যন্ত ১০টি ইউপিতে বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ রয়েছে।

উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের তথ্য অনুযায়ী, চার হাজার হেক্টর জমির আমন ধান ও সবজি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, পানিবন্দী ও বিদ্যুৎ বিভ্রাটের কারণে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে উপজেলার ১০টি ইউপির কয়েকটি গ্রামের মানুষকে। জরুরি প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের হননি কেউ। বন্ধ ছিল বাজার ও লোকালয়ের দোকানপাট। বাসাবাড়িতে দেখা দিয়েছে পানি সংকট।

রায়পুরের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মো. আলমগীর হোসেন বলেন, বুলবুলের প্রভাবে প্রায় ৫০ লাখ টাকার আমন ধান ও সবজির ক্ষতি হয়েছে। তবে ক্ষতি কমাতে আক্রান্ত জমির ফসল তোলা ও জলাবদ্ধ জমিতে দ্রুত সেচ দেয়ার পরামর্শ দেয়া হয়েছে। এছাড়াও দুয়েক দিনের মধ্যে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের তালিকা করা হবে।

পল্লী বিদ্যুৎ অফিসের ডিজিএম শেখ মোনোয়ার মোরশেদ বলেন, ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে রোববার দুপুর থেকে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে গাছ পড়ে দুটি খুঁটি, চারটি ট্রান্সফরমা অচল হয়েছে। এছাড়া অসংখ্য স্থানে তার ছিঁড়ে ৫২ হাজার গ্রাহক বিদ্যুৎ বিভ্রাটে ভুগছেন। পুরো উপজেলায় বিদ্যুৎ সরবরাহ স্বাভাবিক করতে প্রায় ১২ ঘণ্টা সময় লাগবে।

রায়পুরের ইউএনও সাবরীন চৌধুরী বলেন, ঘূর্ণিঝড় বুলবুলে ক্ষতিগ্রস্তদের সার্বক্ষণিক খোঁজ নেয়া হচ্ছে। শুকনো খাবারের ব্যবস্থা করা হয়েছে। বুলবুলের গতিপথ পরিবর্তন হওয়ায় ক্ষতি তুলনামূলক কম হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর