Alexa যশোরের সেই লিতুনজিরা পেল পাঁচ লাখ

যশোরের সেই লিতুনজিরা পেল পাঁচ লাখ

মনিরামপুর (যশোর) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ২১:৩৬ ১৮ জানুয়ারি ২০২০   আপডেট: ২১:৪৫ ১৮ জানুয়ারি ২০২০

ছবি: ডেইলি ‍বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি ‍বাংলাদেশ

যশোরের মনিরামপুরে হাত-পা বিহীন জন্ম নেয়া সেই অদম্য মেধাবী লিতুনজিরার পাশে দাঁড়িয়েছে বসুন্ধরা গ্রুপ। শনিবার দুপুরে তার হাতে আনুষ্ঠানিকভাবে পাঁচ লাখ টাকার চেক ও উপহার সামগ্রী তুলে দেয়া হয়।

এদিন বসুন্ধরা গ্রুপের পক্ষ থেকে ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (হেড অব বাল্ক সেলস) রেদোয়ানুর রহমান পাঁচ লাখ টাকার চেকসহ বিভিন্ন উপহার সামগ্রী নিয়ে লিতুনজিরার শেখপাড়া খানপুরের বাড়িতে হাজির হন। 

এ সময় বসুন্ধরা ফুড এন্ড বেভারেজ ইন্ডাষ্ট্রিজ লিমিটেড ও বসুন্ধরা মাল্টি ফুড প্রডাক্ট লিমিটেডের প্রতিনিধিরা ছাড়াও গোপালপুর স্কুল এন্ড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ রেজাউল করিম, খানপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সাজেদা খাতুন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে বসুন্ধরা গ্রুপকে পাশে পেয়ে মহাখুশি লিতুনজিরা ও তার পরিবারের সদস্যরা। পাশে দাঁড়ানোর জন্য বসুন্ধরা গ্রুপকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তারা। 

মণিরামপুরের শেখপাড়া খানপুর গ্রামের প্রভাষক হাবিবুর রহমান ও জাহানারা বেগমের একমাত্র মেয়ে লিতুন জিরা দুই হাত-পা বিহীন জন্ম নেয়। প্রবল ইচ্ছাশক্তি এবং মেধা দিয়ে পরিবারের দুঃখ-কষ্টকে জয় করেছে। মুখে ভর দিয়ে লিখেই এবার প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষায় জিপিএ-৫ পেয়েছে। 

এরপর মণিরামপুর সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিয়ে ষষ্ঠ শ্রেণির মেধা তালিকায় স্থান পায় লিতুন। চান্স পেয়েও ওই প্রতিষ্ঠানের প্রধান শিক্ষক হায়দার আলীর অসৌজন্য আচরণে ক্ষুব্ধ হয়ে ভর্তি হননি। পরে তাকে উপজেলার গোপালপুর স্কুল এন্ড কলেজে ষষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তি করান পিতা হাবিবুর রহমান। 

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডআর