মনিবের মৃত্যু সইতে না পেরে প্রাণ দিল পোষা কুকুর

মনিবের মৃত্যু সইতে না পেরে প্রাণ দিল পোষা কুকুর

আন্তর্জাতিক ডেস্ক  ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ২০:৩২ ২ জুলাই ২০২০   আপডেট: ২০:৩৪ ২ জুলাই ২০২০

মনিব অনিতা রাজ (বামে), পোষা কুকুর জয়া (ডানে)।

মনিব অনিতা রাজ (বামে), পোষা কুকুর জয়া (ডানে)।

প্রিয় কুকুর জয়ার সঙ্গে ১৩ বছরের ভালোবাস ছিন্ন করে মারা যান চিকিৎসক মনিব অনিতা রাজ। মনিবের মৃত্যু সইতে না পেরে চারতলা থেকে ঝাপ দিয়ে প্রাণ দেয় পোষা কুকুরটি। আর মনিবের শোকে কুকুরের আত্নহননে স্তম্ভিত সবাই।

সম্প্রতি কানপুরের মালিকপুরাম এলাকায় এ মর্মান্তিক ঘটনা ঘটেছে। মৃত্যুর আগে কুকুরটি অনেক ছটফট করেছিল বলে জানা গেছে।

ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম জানায়, ১৩ বছর আগে কানপুরের এক হাসপাতালের বাইরে কাঁদছিল একটি কুকুর ছানা। আশেপাশে থাকা লোকেরা ছানাটির যন্ত্রণা বুঝতে চায়নি। সবাই মুখ ফিরিয়ে নিলেও হঠাৎ কুকুর ছানাটিকে দেখতে পান কানপুরের মালিকপুরাম এলাকায় স্বাস্থ্য বিভাগের জয়েন্ট ডিরেক্টর চিকিৎসক অনিতা রাজ।

তখন কুকুর ছানাটি মৃতপ্রায় ছিল। তার গায়ে ছিল পোকা। দ্রুত কুকুরটিকে বাড়িতে নিয়ে যান অনিতা। চিকিৎসার মাধ্যমে কুকুরটিকে সুস্থ করে তোলেন। কুকুর ছানার প্রতি অনিতা ও তার বাড়ির লোকের ভালোবাসায় বাড়ায় তাদের বাড়িতেই লালন করা হয়। এক সময় ওই পরিবারের সদস্য হিসেবে বসবাস করে কুকুর ছানা। তার নাম দেয়া হয় জয়া। তাদের ভালোবাসা ১৩ বছর কেটেছে। কিন্তু কিছুদিন আগে অনিতার কিডনিতে রোগ ধরা পড়ে। এতে সাত দিন হাসপাতালে ভর্তি করার পর চিকিৎসক অনিতার মৃত্যু হয়।

অনিতার মরদেহ বাড়িতে আনার পর ছটফট করতে থাকে কুকুর জয়া। কয়েক মিনিট যন্ত্রণাময় সময় পার করে চারতলা থেকে বাড়ির নিচে পড়ে যায়। এতে মাটিতে পড়ে মারা যায় জয়া। মনিবের মৃত্যুর সঙ্গে পোষা কুকুরের মৃত্যু সবাইকে স্তম্ভিত করেছে। এদিকে পরিবারের প্রিয় সন্তান ও প্রিয় পোষা প্রাণী হারিয়ে দ্বিগুণ শোকের মাতম চলছে বাড়িতে।

বাড়ির লোকেরা জানান, সারাদিন কাজ করে বাড়ি ফেরা অনিতা কুকুর জয়ার সঙ্গে সময় কাটাত। রিয়া সারাদিন ছোটাছুটি করে আনন্দ করত। গত ১৩ বছর জয়াকে ছাড়া একদিনও থাকেনি অনিতা। প্রিয় মনিবের চলে যাওয়া মেনে নিতে পারেনি কুকুর জয়া। তাই তাদের বাড়ির এক জায়গায় সমাহিত করা হবে।

সূত্র- জি নিউজ।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ