Alexa মজাদার এই স্যুপটি খেয়ে ওজন কমান দ্রুত!

মজাদার এই স্যুপটি খেয়ে ওজন কমান দ্রুত!

লাইফস্টাইল ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৬:৩৪ ১২ জুন ২০১৯  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

ওজন কমাতে আমরা কত কি না করি। এর জন্য অনেক পছন্দের খাবারও খাওয়া থেকে বিরত থাকি। কিন্তু ডায়েট করার পরও ওজন কমে না অনেকেরই। তাই অল্প খেয়ে নয় পেটপুরে খেয়ে ওজন কমান এই জাদুকরী স্যুপের সাহায্যে। এই ভীষণ মজাদার স্যুপটি দিনে একবার বা দুবার করে খেতে শুরু করুন, বিনা কষ্টে ডায়েট ছাড়াই কমবে ওজন। মাত্র ৭দিনেই ঝড়ে যাবে অনেকটা বাড়তি ওজন। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক স্যুপ তৈরির রেসিপিটি-

উপকরণ: কাটা ছাড়া বড় মাছ কিংবা মুরগির কিমা ১ কাপ, ফিশ বা চিকেন ষ্টক ২ কাপ (মাছ হলে ফিশ আর মুরগি হলে চিকেন ষ্টক ব্যবহার করুন। ষ্টক তৈরি করতে মাছ বা মুরগির টুকরো আদা, রসুন, লবণ, গোল মরিচ দিয়ে জ্বাল দিন অল্প আছে। ঘণ্টা খানেক জ্বাল দিলে আপনার ষ্টক তৈরি ব্যবহারের জন্য। চাইলে সবজির ষ্টকও ব্যবহার করতে পারেন।) মরিচ, পুদিনা পাতা কুচি, গোল মরিচ গুঁড়ো স্বাদমতো, সবজি পছন্দমতো ১ কাপ (গাজর, পেঁপে, ফুলকপি, ব্রকলি, বাঁধাকপি, বরবটি, পালং শাক, বেবি কর্ণ ইত্যাদি), সয়াসস সামান্য, কর্ণ ফ্লাওয়ার ১ চা চামচ, ফিশ সস ১ চামচ (ইচ্ছা), লবণ স্বাদমতো।

প্রণালী: মাছ বা মাংসের কিমাকে মাখিয়ে নিন সয়াসস, লবণ ও গোলমরিচ দিয়ে। এই মাখানো মাছ বা মাংসের মাঝে মরিচ ও পুদিনা পাতা কুচি ভরে ছোট ছোট বল আকারে গড়ে নিন। চুলায় ষ্টক গরম দিন। এতে একে একে সয়াসস, ফিশ সস, লবণ ও গোলমরিচ দিয়ে দিন। তারপর ফিশ বা চিকেন বল গুলো দিয়ে দিন। অল্প আঁচে বলগুলো সিদ্ধ হতে দিন। সবজিগুলোকে আগেই ভাপিয়ে রাখুন। বলগুলো সিদ্ধ হয়ে গেলে সবজিগুলো ষ্টকের মাঝে দিয়ে দিন। আরও কিছুক্ষণ রান্না করুন। এরপর কর্ণফ্লাওয়ার পানিতে গুলিয়ে স্যুপের মাঝে দিয়ে নাড়ুন। স্যুপ ঘন হয়ে গেলে নামিয়ে নিন। খুব বেশি ঘন হবে না , আবার পাতলাও না। চাইলে আরও কর্ণ ফ্লাওয়ার দিতে পারেন। ব্যস, তৈরি হয়ে গেলো মজাদার স্যুপ।

দ্রুত ওজন কমাতে যেভাবে খেতে হবে
দ্রুত ওজন কমাতে এই স্যুপটি এক বাটি করে দিনে দুইবেলা খেতে হবে। সাথে রাখুন ছোট্ট এক টুকরো টোস্ট। কিংবা আপনি চাইলে এক মুঠো রাইস নুডুলসও দিতে পারেন। সকালে পছন্দমতো যে কোনো নাস্তা করুন, ভাত-রুটি কিংবা যা ভালো লাগে। কিন্তু দুপুরে ও রাতে খেতে হবে এই খাবারটি। অর্থাৎ দুপুরে ও রাতে ভাত কিংবা রুটির বদলে এই খাবারটি চলবে।

এই খাবার খেলে দুর্বল হয়ে পড়ার কোনো ভয় নেই। কারণ এতে আছে পর্যাপ্ত মাত্রায় প্রোটিন, সামান্য কার্বোহাইড্রেট, প্রচুর সবজি অর্থাৎ প্রচুর ভিটামিন ও মিনারেলস। একদম লো ফ্যাট ও লো ক্যালোরির এই খাবারটি দুর্বল হতে দেয় না, কিন্তু ওজন খুব দ্রুত কমায়। তবে হ্যাঁ, ভালো ফল পেতে ভাজাভুজি খাবার কিছুদিনের জন্য বাদ দিয়ে দিন।

ডেইলি বাংলাদেশ/এএ 

Best Electronics
Best Electronics