মঙ্গলে পিরামিড! যে ছবি নিয়েই তোলপাড়

মঙ্গলে পিরামিড! যে ছবি নিয়েই তোলপাড়

বিজ্ঞান ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৩:১০ ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আপডেট: ১৩:১৭ ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৯

ছবি : সংগৃহীত

ছবি : সংগৃহীত

মঙ্গল গ্রহ নিয়ে জল্পনা-কল্পনার শেষ নেই। কিছু দিন আগে মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসা জানিয়েছিল, এক সময়ে মঙ্গলে সমুদ্র ছিল। এছাড়া জীবজগৎ গড়ে ওঠার জন্য প্রয়োজনীয় অক্সিজেনও ছিল এখানে। নতুন খবর হচ্ছে, মহাকাশযান মার্স রিকনেসাঁস অরবিটারের (এমআরও) তোলা ছবিতে মঙ্গলে একটি পিরামিড দেখা যাচ্ছে। এই পিরামিড এলিয়েনদের তৈরি কি-না, তা নিয়ে চলছে জল্পনা কল্পনা।

ছবিটি নিয়ে সাম্প্রতিক সময়ে বেশ তুলকালাম কাণ্ড ঘটলেও, এটি তোলা হয়েছিল দশ বছর আগে। ওই ছবিতে যা দেখা যাচ্ছে তা আদতে পিরামিড বলেও ধরা যায় না। ওই ছবিটার মাপজোখ হিসেব করলে দেখা যায় ত্রিকোণ কাঠামোটি ৪০ বাই ৩০ মিটার। সেটা মিশরের গিজার সবচেয়ে ছোট পিরামিডটির চেয়েও ছোট। এছাড়া ওই পিরামিডটি একটি গভীর খাদের ভেতরে অবস্থিত। তাতে একসময় পানি ছিল বলে বিশ্বাস করা হয়।

পিরামিডটি একটি গভীর খাদের ভেতরে অবস্থিত

‘এলিয়েন-বিশ্বাসী’ স্কট সি. ওয়ারিং ওই ছবি দেখে মন্তব্য করেন, ‘এই পিরামিড এলিয়েনদের তৈরি হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। হয়তো এলিয়েনরা ওই জায়গায় বসতি তৈরির চেষ্টা করছিল।’ এমনকি তিনি এটাও বিশ্বাস করেন, ওই একই ধরনের এলিয়েনরা হয়তো পৃথিবীর পিরামিডগুলোকেও তৈরি করেছিল। তবে অনেকে বিষয়টিকে ‘হাস্যকর’ বলে আখ্যা দিয়েছেন।

এসব তর্ক-বিতর্কের শুরু মাত্র। এই মুহূর্তে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন, তাহলে কি এলিয়েনরা পানির নিচে এই পিরামিড তৈরি করেছিল? না, আসলে এটি পানির স্রোত ও বাতাসের ধাক্কায় তৈরি একটি প্রাকৃতিক পাথুরে কাঠামো। তা দেখে উৎসাহিত হওয়ার তেমন কিছু নেই।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে