Alexa ভাষা আন্দোলন-মুক্তিযুদ্ধ চিত্রে রঙিন দেয়াল

ভাষা আন্দোলন-মুক্তিযুদ্ধ চিত্রে রঙিন দেয়াল

চয়ন বিশ্বাস, ব্রাহ্মণবাড়িয়া  ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৫:৪৬ ৬ ডিসেম্বর ২০১৯   আপডেট: ১৬:১৪ ৬ ডিসেম্বর ২০১৯

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

৮ ডিসেম্বর ব্রাহ্মণবাড়িয়া মুক্ত দিবস। দিবসটি ঘিরে রঙিন করা হচ্ছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের দেয়াল। সেখানে আঁকা হচ্ছে ভাষা আন্দোলন ও মুক্তিযুদ্ধের ছবি। 

সরেজমিনে দেখা গেছে, ‘আমরা ব্রাহ্মণবাড়িয়া’ সংগঠনের আয়োজনে ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিশু নাট্যমের ৩০ সদস্য তুলি দিয়ে দেয়ালে ভাষা আন্দোলন ও মুক্তিযুদ্ধের বীরত্বগাঁথা ইতিহাস তুলে ধরছেন। এর মধ্যে দেয়ালের ৪৫টি ব্লকে আঁকা হচ্ছে ভাষা আন্দোলন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ই মার্চের ভাষণ, বধ্যভূমি, সম্মুখযুদ্ধ, ৭১’র চিঠি, গণহত্যা, শরণার্থীসহ মুক্তিযুদ্ধের নানা ছবি। ২৮ নভেম্বর থেকে শুরু হওয়া ছবি আঁকার কাজ ৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত চলবে। 

বাংলাদেশ গ্যাস ফিল্ডস্ স্কুল অ্যান্ড কলেজের ছাত্র আবু সায়েম ভূঁইয়া বলেন, মুক্তিযুদ্ধের সময়ে শরণার্থীদের একটি ছবি এঁকেছি। ছবিটা সুন্দরভাবে ফুটিয়ে তোলার চেষ্টা করেছি। এই ছবি আঁকার সুযোগ পেয়ে ভালো লাগছে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরকারি মহিলা কলেজের ছাত্রী ফাল্গুনি মল্লিক বলেন, ভাষা আন্দোলনের একটি ছবি আঁকছি। ছবির কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে। ছবিটি আঁকতে গিয়ে ভাষা আন্দোলনে উপস্থিত থাকার টান অনুভূব করেছি। এ ছবি আঁকতে পেরে মনে অন্যরকম অনুভূতি কাজ করছে।

এ ব্যাপারে ব্রাহ্মণবাড়িয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোস্তফা কামাল বলেন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া মুক্ত দিবস উপলক্ষে ‘আমরাই ব্রাহ্মণবাড়িয়া’ সংগঠনের উদ্যোগে স্কুলের দেয়ালে ভাষা আন্দোলন-মুক্তিযুদ্ধকে সুন্দরভাবে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। এতে শিক্ষার্থীরা মুক্তিযুদ্ধ সম্পর্কে জানতে পারছে।

‘আমরাই ব্রাহ্মণবাড়িয়া’ সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা বিবর্ধন রায় ইমন বলেন, স্কুল পড়ুয়া শিক্ষার্থীদের মাঝে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ছড়িয়ে দিতেই এ উদ্যোগ। পাঁচ বছর ধরে ‘রঙিন হবে আমাদের স্কুল ও কলেজ’ এ কর্মসূচির অংশ হিসেবে স্কুল-কলেজের দেয়ালকে বিজ্ঞাপন মুক্ত করে ভাষা আন্দোলন ও মুক্তিযুদ্ধের ছবি আঁকার উদ্যোগ নেয়া হয়। কর্মসূচির আওতার অংশ হিসেবে এ বছর ব্রাহ্মণবাড়িয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের দেয়ালগুলো বিজ্ঞাপনমুক্ত করে ভাষা আন্দোলন ও মুক্তিযুদ্ধের বিভিন্ন ছবি আঁকা হচ্ছে। এতে দেয়ালগুলো যেমন বিজ্ঞাপন মুক্ত হচ্ছে, তেমনি শিক্ষার্থীরাও ভাষা আন্দোলন ও মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস জানতে পারবে। আর জেলা হানাদার মুক্ত দিবসকে ঘিরে কাজ এগিয়ে চলছে। মু্ক্ত দিবসে সবাই বিজয়ের আনন্দে মেতে উঠবে। 

তিনি আরো বলেন, ৮ ডিসেম্বর সকাল ৮টা ৮ মিনিটে জেলার আটজন মুক্তিযোদ্ধা ‘রঙিন হবে আমাদের স্কুল’ কার্যক্রমের উদ্বোধন করবেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ