ভারত যা করতে পারেনি, তা করল গালওয়ান নদীর পানি!

ভারত যা করতে পারেনি, তা করল গালওয়ান নদীর পানি!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ২১:৫০ ৫ জুলাই ২০২০   আপডেট: ২১:৫৫ ৫ জুলাই ২০২০

স্যাটেলাইটে গালওয়ান উপত্যকা। ছবি: জি নিউজ।

স্যাটেলাইটে গালওয়ান উপত্যকা। ছবি: জি নিউজ।

লাদাখের গালওয়ান উপত্যকায় চীন-ভারতের সেনাদের সংঘর্ষের পর দফায় দফায় আলোচনায় সীমান্তে শান্তি ফেরাতে পারেনি দুই দেশ। তাই এতদিনে নিয়ন্ত্রণরেখার পাশে ঘাঁটি করে বসা চীনা সেনাদের  সরাতে পারেনি ভারত। তবে গালওয়ান নদীর পানিই চীনা সেনাদের সরিয়ে দিচ্ছে। আর সেই চিত্র সেনা সূত্রের বরাত দিয়ে স্যাটেলাইটে দেখার দাবি করছে ভারতের সংবাদ মাধ্যম জি নিউজ

সংবাদ মাধ্যমটির একটি প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখার কাছে ভারত-চীনা সেনার মধ্যে উত্তেজনা সৃষ্টির স্থান থেকে পাঁচ কিলোমিটার দূরে তাঁবু তৈরি করেছিল চীনা সেনা। সেখানে গালওয়ান নদী ফুঁসে উঠায় পানি গিয়ে পড়ছে চীনা সেনাদের তাঁবুতে। এতে সরে যেতে বাধ্য হচ্ছে চীনা সেনারা।

প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, গালওয়ান নদীর উত্পত্তিস্থল আকসাই চীন। সেখানে তাপমাত্রা বেশ বাড়ায় বরফ গলতে শুরু করেছে। সেই বরফ গলা অতিরিক্ত পানি গালওয়ান নদীতে ভয়ানক রূপ ধারণ করেছে। এ অবস্থায় গালওয়ান নদীর আশপাশে থাকাও বিপজ্জনক। তাই চীনা সেনারা গলওয়ান নদীর উপচে পড়া পানিতেই সরে যাচ্ছে। আর  এ চিত্র স্যাটেলাইটে দেখা গেছে বলে জানিয়েছে সেনা সূত্র।

বরফ গলা-বৃষ্টির পানিতে গালওয়ান নদী ভয়ানক আকার ধারণ করে। কখনো কখনো পাহাড়ি ঢলের পানি বন্যায় রূপ নিয়ে নদীর দুইপাশের সবকিছু ভাসিয়ে নিয়ে যায়। এ অবস্থায় গালওয়ান উপত্যকায় চীনা সেনারা বেশিদিন টিকতে পারবে না বলে দাবি সংবাদ মাধ্যমটির।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ