Alexa ব্যবসায়ীর স্বর্ণ লুটের ঘটনায় সাতদিন পর গ্রেফতার ৭

ব্যবসায়ীর স্বর্ণ লুটের ঘটনায় সাতদিন পর গ্রেফতার ৭

সাভার (ঢাকা) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ২২:৩১ ১১ নভেম্বর ২০১৯  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

সাভারের আশুলিয়ায় এক জুয়েলারি ব্যবসায়ীর পাঁচ ভরি স্বর্ণ ও টাকা লুটের অভিযোগে সাতজনকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা জেলা (উত্তর) গোয়েন্দা পুলিশ।

রোববার (১০ নভেম্বর) রাতে আশুলিয়ার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের আটকের পর সোমবার (১১ নভেম্বর) দুপুরে ডাকাতির মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে পাঠানো হয়। পরে আদালত তাদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেয়।

গ্রেফতাররা হলেন- বরিশালের আগৈলঝড়া থানার নাগিরপার গ্রামের মৃত প্রভুদান সরকারের ছেলে পলাশ সরকার, বগুড়ার শাহজাহানপুর থানার রহিমাবাদ গ্রামের হারুনুর রশিদের ছেলে মামুন, হবিগঞ্জের চুনারঘাট থানার দুধপাতিল গ্রামের আব্দুল কাইয়ুমের ছেলে জহিরুল ইসলাম সানী, ঢাকার ধামরাইয়ের রিয়াজ উদ্দিনের ছেলে জাকির হোসেন, আশুলিয়া থানার ডেন্ডাবর গ্রামের দেলোয়ার হোসেনের ছেলে জামান, বাগেরহাটের কচুয়া থানার গজারিয়া গ্রামের হাবিবুর রহমান মৃধার ছেলে নাসির উদ্দিন মৃধা ও মানিকগঞ্জের দৌলতপুর থানার শামসুল হকের ছেলে জহিরুল ইসলাম ওরফে জাহাদ আলী।

গোয়েন্দা পুলিশ জানায়, গত ৩ নভেম্বর রাতে আশুলিয়ার বাইপাইল নামাবাজার এলাকার ফাল্গুনী জুয়েলারির মালিক গৌরাঙ্গ দোকান বন্ধ করে পাঁচ ভরি স্বর্ণ ও নগদ দুই লাখ ৭০ হাজার টাকা নিয়ে বাড়ির উদ্দেশে রওনা হন। এ সময় পথিমধ্যে একদল দুর্বৃত্ত তার গতিরোধ করে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে স্বর্ণ ও নগদ টাকা ছিনিয়ে নেয়। পরে ৮-১০টি ককটেল ফাটিয়ে এলাকায় আতঙ্ক সৃষ্টি করে ডাকাতরা পালিয়ে যায়। এ ঘটনার সাতদিন পর ১০ নভেম্বর রাতে আশুলিয়ার বিভিন্ন স্থানে অভিযানে চালিয়ে সাতজনকে আটক করা হয়।

ঢাকা জেলা (উত্তর) গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক আবুল বাশার জানান, সোমবার দুপুরে আসামিদের আদালতে পাঠানো হলে আসামিরা ডাকাতির কথা স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেন। পরে আদালতে তাদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম