Alexa বিশেষ কিছু বলা নিষেধ: মিম

বিশেষ কিছু বলা নিষেধ: মিম

নাজমুল আহসান ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৭:৪১ ২৪ আগস্ট ২০১৯   আপডেট: ১৯:৪৫ ২৪ আগস্ট ২০১৯

বিদ্যা সিনহা মিম

বিদ্যা সিনহা মিম

ঢালিউডের গ্ল্যামারাস নায়িকা বিদ্যা সিনহা মিম। যার আনিন্দ্য সুন্দর রূপ দেখে অনেক ভক্তের মনেই নানা কল্পবিলাসী স্বপ্নের ডালপালা জেগে ওঠে। লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টার ২০০৭ প্রতিযোগিতা থেকেই শোবিজের রঙে নিজেক রাঙিয়ে অভীষ্ঠ লক্ষ্যে ছুটে চলছেন অবিরত। মডেলিং, বিজ্ঞাপন, নাটক বা সিনেমা শোবিজের প্রতিটি সেক্টরেই হয়েছেন প্রশংসিত। শিগগিরই ‘পরাণ’ নামের ছবিতে কাজ করতে যাচ্ছেন মিম। মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে তার ‘সাপলুডু’ ছবিটি। ছবিগুলো সহ সমসাময়িক বিষয় নিয়ে ডেইলি বাংলাদেশের মুখোমুখি হন এ অভিনেত্রী। সাক্ষাৎকার নিয়েছেন নাজমুল আহসান

ক্যারিয়ারে প্রথমবার মিউজিক ভিডিওতে কাজ করলেন, কেমন সাড়া পাচ্ছেন?

‘তোমার দেখা যদি পাই’ গানটি প্রকাশের পর থেকেই সবার কাছ থেকে ভালো সাড়া পাচ্ছি। পূজা যখন গানটি আমাকে প্রথম শোনায় সেদিনই ভালো লেগেছিল। সাধারণত সিনেমায় যে ধরনের গান করি, এই মিউজিক ভিডিও নির্মাণের ক্ষেত্রে সেরকমই বাজেট ছিল, অ্যারেজমেন্ট ভালো ছিল। এর গল্প, নির্মাতা, লোকেশন সবমিলিয়ে ভালো লাগায় কাজটি করেছি। শ্রোতা দর্শক যারা গানটি দেখেছে সবাই বলছে ভালো লাগছে, এটাই হচ্ছে আসল তৃপ্তি।

ঈদের পর কী নিয়ে সময় কাটছে?

কয়েকদিন হলো আমার বোন মমি কানাডা থেকে এসেছে। আগামী ১ তারিখে আবার চলে যাবে। আপাতত ওর সঙ্গেই সময় কাটছে। আর ২ সেপ্টেম্বর থেকে রায়হান রাফির নির্দেশনায় ‘পরাণ’ সিনেমার কাজ শুরু করবো। বোনকে সময় দেয়ার পাশাপাশি এ ছবির জন্যও প্রস্তুতি নিচ্ছি। 

‘পরাণ’ সিনেমায় আপনাকে কেমন চরিত্রে দেখা যাবে?

আপাতত চরিত্র নিয়ে বিশেষ কিছু বলা নিষেধ। এতোটুকু বলতে পারি, একজন মফস্বলের মেয়ের চরিত্রে অভিনয় করতে যাচ্ছি। সেখানে আমাকে ডাকা হবে পরাণ নামেই। যার আশেপাশের আনন্দ, ভালোবাসা ও সমস্যা উঠে আসবে চরিত্রের মাধ্যমে।

আপনার অভিনীত ‘সাপলুডু’ সিনেমাটি মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে। এ ছবিতে মিমকে কোন রূপে দেখা যাবে?

এ ছবিতে আমাকে পার্বত্য অঞ্চলের একটি স্ট্রাগল করা মেয়ে পুষ্পের চরিত্রে দেখা যাবে। যিনি খুবই কষ্ট করে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করার স্বপ্নে কাজ করেন। গল্প নির্ভর ছবি, দেখে মনে হবে বাস্তব জীবন ফুঁটিয়ে তোলা হয়েছে। এর বেশি কিছু এখনই বলতে পারছি না। তবে ছবির গল্প বেশ সুন্দর।

ছবিটি নিয়ে আপনার প্রত্যাশা কেমন?

দোদুল ভাইয়ের নির্দেশনায় ‘সাপলুডু’ সিনেমাতে নিজের সর্বোচ্চটুকু দিয়ে কাজ করার চেষ্টা করেছি। চেষ্টা করেছি পুষ্পকে যথাযথভাবে পর্দায় তুলে ধরতে। আমি এই শুটিংয়ের সময়টুকুতে চেষ্টা করেছি পুষ্পতে মগ্ন থাকতে। ইউনিটের সবাই আমার কাজ নিয়ে সন্তুষ্ট ছিলেন, এটাও এক ধরনের প্রাপ্তি। তবে ‘সাপলুডু’ নিয়ে অন্য অনেকের মতো আমিও ভীষণ আশাবাদী। কারণ এর গল্প এবং নির্মাণশৈলী নিঃসন্দেহে অসাধারণ।

গেল কোরবানি ঈদে মুক্তিপ্রাপ্ত দুটি ছবিই দর্শক টানতে ব্যর্থ হয়েছে। একজন চলচ্চিত্রের মানুষ হিসেবে এর কারণ কি মনে হয় আপনার?

প্রথমত যেটা মনে হয় চারপাশে যে সমস্যা ডেঙ্গু, এটার প্রভাব পড়েছে এবারে ঈদের সিনেমায়। এর আগে বন্যার কারণেও অনেক অঞ্চলে ক্ষতি হয়েছে সেটাও মানুষ ঠিক ভাবে কাটিয়ে উঠতে পারেনি।  আমার মনে হয় আগে থেকে ঘটা করে প্রমোশনটা করা উচিত ছিল, মানুষকে জানানোর জন্য। এবার সিনেমার প্রমোশন সেভাবে চোখে পড়েনি। আর ছবির গল্প ভালো হলে অবশ্যই দর্শকরা সিনেমা দেখে।

 আবারো আপনার ভক্তদের প্রাণের প্রশ্ন, বিয়েটা কবে করছেন?

এখন পর্যন্ত বিয়ের বিষয়ে চিন্তা করিনি। আপাতত অভিনয়টাই মনোযোগ দিয়ে করতে চাই। নিজেকে একজন প্রতিষ্ঠিত অভিনেত্রী হিসেবে গড়ে তুলতে চাই। আর যখন বিয়ের বিষয়ে সিদ্ধান্ত হবে তখন সবাইকে জানাবো। 

আগেই জানাবেন না গোপন বিয়ের খবর দেবেন?

গোপন বিয়ের খবর জানানোর সম্ভবনা নেই। অবশ্যই সবাইকে জানিয়েই বিয়ে করবো। 

ডেইলি বাংলাদেশ/এনএ