প্রেম প্রত্যাখান করায় রাতভর ধর্ষণ, কৃষকরূপী পুলিশের জালে ধর্ষক  

প্রেম প্রত্যাখান করায় রাতভর ধর্ষণ, কৃষকরূপী পুলিশের জালে ধর্ষক  

ফেনী প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৬:৪৩ ২৮ মে ২০২০  

ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার জিয়া

ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার জিয়া

ফেনীর সোনাগাজীতে প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখান করায় এক তরুণীকে ধরে নিয়ে রাতভর ধর্ষণ করেছে জহিরুল ইসলাম জিয়া নামে এক বখাটে যুবক।

মঙ্গলবার রাতে উপজেলার চরদরবেশ ইউপির দক্ষিণ চরদরবেশ গ্রামের ইউপি সদস্য মো. আবু সুফিয়ানের বসত ঘরে এ ঘটনা ঘটে। গ্রেফতার হওয়া ধর্ষক জিয়া ইউপি সদস্য আবু সুফিয়ানের ছেলে। 

জিয়া দীর্ঘ দিন ধরে একই গ্রামের এক তরুণীকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে উত্ত্যক্ত করে আসছিল। মঙ্গলবার রাতে ওই তরুণী প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে ঘর থেকে বের হলে জিয়ার নেতৃত্বে ৪-৫ সশস্ত্র সন্ত্রাসী গামছা দিয়ে মুখ বেঁধে তরুণীকে অপহরণ করে নিয়ে যায়।

পরে জিয়া তার শয়ন কক্ষে ওই তরুণীকে রাতভর ধর্ষণ করে। বুধবার সকালে ওই তরুণীকে ওই কক্ষ থেকে গলা ধাক্কা দিয়ে বের করে দিলে তরুণী ওই বখাটের বসত ঘরের সামনে অবস্থান নেয়। এ সময় বখাটের বাবা আবু সুফিয়ান ও তার ভাই জোর করে তাকে ওই বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেন।

বুধবার বিকেলে ওই তরুণী বাদী হয়ে জিয়ার নাম উল্লেখ করে ও ৪-৫ জনকে অজ্ঞাত আসামি করে সোনাগাজী মডেল থানায় মামলা করেন। 

পুলিশ বৃহস্পতিবার সকালে লুঙ্গি, গামছা ও গেঞ্জি পরে কৃষক এবং জেলের বেশে দক্ষিণ চরদরবেশ গ্রামের হাদা ব্যাপারি ঘোনায় অভিযান চালিয়ে জিয়াকে গ্রেফতার করে। দুপুরে ফেনী জেনারেল হাসপাতালে ধর্ষিতার ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে।

সোনাগাজী মডেল থানার ওসি সাজেদুল ইসলাম বলেন, পুলিশের কুইক রেসপন্স টিম সফলতার সঙ্গে মামলার প্রধান আসামিকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছে। বাকিদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ