পরীক্ষা কেন্দ্রে কান ধরে দাঁড় করিয়ে রাখা হলো ছাত্রীকে

পরীক্ষা কেন্দ্রে কান ধরে দাঁড় করিয়ে রাখা হলো ছাত্রীকে

সিংগাইর (মানিকগঞ্জ) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ২০:১৮ ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

অভিযুক্ত মো. রাসেল মিয়া

অভিযুক্ত মো. রাসেল মিয়া

মানিকগঞ্জের সিংগাইরে এসএসসির উচ্চতর গণিত পরীক্ষায় এক ছাত্রীকে কান ধরে দাঁড় করিয়ে রাখার অভিযোগ উঠেছে ট্যাগ অফিসারের বিরুদ্ধে।

রোববার সিংগাইর সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত মো. রাসেল মিয়ার বিরুদ্ধে ইউএনও বরাবর অভিযোগ দিয়েছেন ভুক্তভোগী ছাত্রীর স্কুলের প্রধান শিক্ষক আবুল কালাম আজাদ। রাসেল উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অফিসের উপ-সহকারী।

আবুল কালাম আজাদ জানান, সকালে সিংগাইর সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রের ২০৪ (ক) নম্বর কক্ষে পরিদর্শনে যান ট্যাগ অফিসার মো. রাসেল মিয়া। এ সময় ওই ছাত্রীর উত্তরপত্র নিয়ে কান ধরে সাত মিনিট দাঁড় করিয়ে রাখেন তিনি। এতে মানসিকভাবে ভেঙে পড়েন ভুক্তভোগী।

কেন্দ্রের কক্ষ পরিদর্শক কবি নজরুল উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক সৈকত মোস্তফা বলেন, পাশের পরীক্ষার্থীর সঙ্গে কথা বলার কারণে ওই ছাত্রীকে কান ধরে দাঁড় করিয়ে রাখা হয়েছিল।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সিরাজ উদ-দৌল্লাহ বলেন, ঘটনাটি শুনেছি। পরীক্ষা চলার সময়ে কোনো পরীক্ষার্থীকে এভাবে কান ধরে দাঁড় করিয়ে রাখার বিধান নেই। তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

অভিযুক্ত ট্যাগ অফিসার মো. রাসেল মিয়া বলেন, এ বিষয়ে ইউএনও’র সঙ্গে কথা না বলে নিউজ করবেন না। এ ব্যাপারে সিংগাইরের ইউএনও রুনা লায়লা বলেন, জেলায় মিটিংয়ে আছি। এ বিষয়ে পরে কথা বলবো।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর