নটরডেমসহ চার কলেজে ভর্তি কার্যক্রম স্থগিত

নটরডেমসহ চার কলেজে ভর্তি কার্যক্রম স্থগিত

নিজস্ব প্রতিবেদক  ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৫:৩৬ ৩ জুন ২০২০   আপডেট: ১৬:৫২ ৩ জুন ২০২০

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

একাদশ শ্রেণিতে নিজস্ব পদ্ধতিতে শিক্ষার্থী ভর্তির অনুমতি পেয়েছিল রাজধানীর নটরডেম কলেজ, হলিক্রস কলেজ, সেন্ট জোসেফ উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও সেন্ট গ্রেগরি হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ। তবে বুধবার ভর্তি আবেদন সংগ্রহের এই অনুমতি স্থগিত করেছে ঢাকা শিক্ষাবোর্ড।

ডেইলি বাংলাদেশকে খবরটি নিশ্চিত করেছেন ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের কলেজ পরিদর্শক অধ্যাপক ড. হারুন অর রশীদ। 

তিনি বলেন, করোনার সময় ভর্তি কার্যক্রম পরিচালনা করতে এই চারটি কলেজকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার অনুমতি দেয়া হয়েছিল। পরে পরিস্থিতি বিবেচনায় আজকে সেটি স্থগিত করা হয়েছে।  

তিনি আরো বলেন, করোনা সংক্রমণের এই ঝুঁকির মধ্যে আমরা কোথাও শিক্ষার্থী ভর্তি শুরু করছি না। তবে ভর্তি সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত শিগগিরই প্রকাশ করা হবে।

এ ব্যাপারে ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান মু. জিয়াউল হক বলেন, চাইলে শিক্ষার্থী ভর্তি করা যায়, তবে এতে কোভিড-১৯ রোগের সংক্রণ ঝুকি অনেক বেড়ে যাবে। এজন্য আমরা কিছুটা সময় নিচ্ছি। ঝুঁকি কমিয়ে কিভাবে দ্রুততম সময়ে ভর্তি কার্যক্রম শেষ করা যায় সে ব্যাপারে চিন্তা ভাবনা চলছে। শিগগির জানানো হবে।

এদিকে নটরডেম কলেজ, হলিক্রস কলেজ, সেন্ট জোসেফ উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও সেন্ট গ্রেগরি হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজে নিজস্ব পদ্ধতিতে শিক্ষার্থী ভর্তির জন্য মঙ্গলবার (২ জুন) বিজ্ঞাপন প্রকাশ করেছিল।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, নটর ডেম কলেজ নিজস্ব অনলাইনে ভর্তির আবেদন গ্রহণ করবে। ভর্তি হতে আগ্রহী প্রার্থীদের ৩ জুন দুপুর ১২টা ১ মিনিট থেকে ১১ জুন দুপুর ১২টা পর্যন্ত সরাসরি ওয়েবসাইট https://www.mcampus-admission.online/ndc/ অথবা নটরডেম কলেজের নির্দিষ্ট ওয়েবসাইটে www.notredamecollege-dhaka.com আবেদন করতে হবে।

বিজ্ঞান বিভাগ থেকে ভর্তির আবেদনের ন্যূনতম যোগ্যতা ধরা হয়েছিল, বাংলা মাধ্যম ও ইংরেজি ভার্সন (উচ্চতর গণিতসহ) জিপিএ-৫, মানবিক বিভাগ জিপিএ ৩.০০ এবং ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগ জিপিএ ৪.০০।

তবে বুধবার বোর্ড থেকে আবেদন স্থগিত করা হলে বিজ্ঞাপনটি প্রত্যাহার করে নেয় নটরডেম কলেজ কর্তৃপক্ষ।

উল্লেখ্য, মে মাসের ৩১ তারিখ এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়। এবারে গড় পাসের হার ৮২.৮৭ শতাংশ।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআরকে