Alexa ধর্মঘট শ্রমিকদের স্বপ্রণোদিত

ধর্মঘট শ্রমিকদের স্বপ্রণোদিত

ফরিদপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৬:০৭ ২১ নভেম্বর ২০১৯  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ফরিদপুরে শ্রমিকরা স্বপ্রণোদিতভাবে পরিবহন ধর্মঘট পালন করছে বলে জানিয়েছেন জেলা মোটর ওয়ার্কাস ইউনিয়নের সভাপতি জোবায়ের জাকির।

তিনি বলেন, ধর্মঘটের ব্যাপারে কোনো নির্দেশনা নেই। শ্রমিকরা স্বপ্রণোদিতভাবে বাস চলাচল বন্ধ রেখেছে।

এদিকে স্থানীয়সহ দূরপাল্লার বাস চলাচল বন্ধ থাকায় যাত্রীরা চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন। অন্যদিকে ট্রাক চলাচল বন্ধ থাকায় তিন দিন ধরে নৌবন্দরে স্থবিরতা বিরাজ করছে। নৌযান থেকে মালামাল খালাস করতে না পারায় ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন কার্গো জাহাজের মালিকরা। এছাড়া বেকায়দায় পড়েছেন বন্দরের কয়েক হাজার কুলি।

বৃহস্পতিবার ফরিদপুর সিঅ্যান্ডবি ঘাটের নৌবন্দরে দেখা যায়, তিনদিন ট্রাক ধর্মঘটের কারণে বন্দরে আসা পণ্যবাহী নৌযান মালামাল খালাসের অপেক্ষায় রয়েছে। সময়মতো পণ্য খালাস করতে না পারায় নানা খাতে অতিরিক্ত খরচ হচ্ছে।

কার্গো জাহাজ এমভি ওয়াটার হেন চালক আতিয়ার হোসেন জানান, তিনদিন আগে নারায়নগঞ্জ থেকে সিমেন্ট নিয়ে বন্দরে এসেছি। কিন্তু ট্রাক শ্রমিকদের ধর্মঘটের কারণে সিমেন্ট খালাস করতে পারিনি। এ বিলম্বের কারণে থাকা-খাওয়াসহ নানা খাতে বাড়তি খরচ হচ্ছে।

চট্টগ্রাম থেকে আসা আমদানি করা ইউরিয়া সার বোঝাই কার্গোর চালক মোহাম্মদ হাকিম। তিনি জানান, ফরিদপুর বন্দর থেকে ইউরিয়া সার ট্রাক যোগে সরকারের গোডাউনে নেয়া হবে। কিন্তু এ ধর্মঘটের কারণে সেটি সম্ভব হচ্ছে না। 

হাজী শিপিং লাইন্সের মালিক রেজাউল করিম জানান, ট্রাক চলাচল না করায় পণ্য ট্রান্সপোর্ট করতে পারছি না। অথচ প্রতিদিন শ্রমিকদের বেতন দিতে হচ্ছে। আমার মতো অনেক ব্যবসায়ী আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়েছেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ