দুঃস্থদের মাঝে ঈদবস্ত্র বিতরণ ডিএমপি কমিশনারের

দুঃস্থদের মাঝে ঈদবস্ত্র বিতরণ ডিএমপি কমিশনারের

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৬:২২ ২৩ মে ২০১৯   আপডেট: ১৬:৩৫ ২৩ মে ২০১৯

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ঈদের আনন্দ সবার মাঝে বিলিয়ে দিতে সমাজের অসহায় ও দুঃস্থ মানুষকে ঈদবস্ত্র উপহার দিয়েছেন ডিএমপি কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া।

বৃহস্পতিবার সকালে রাজধানীর বনানী ও দুপুরে উত্তরা এলাকায় অসহায় ও দুঃস্থ মানুষের মাঝে ৩৫০০ পিস (শাড়ি, লুঙ্গি, পাঞ্জাবি ও ছোট বাচ্চাদের পোশাক) ঈদবস্ত্র বিতরণ করা হয়। ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের গুলশান ও উত্তরা বিভাগ ঈদবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। এ বিতরণের কার্যক্রম চলমান রেখেছে ডিএমপি।

ঈদ আনন্দ সবার মাঝে ছড়িয়ে পড়ুক এ প্রত্যয় ব্যক্ত করে কমিশনার বলেন, আপনাদের ভালোবাসি বলে ঈদবস্ত্র ও শীতবস্ত্র নিয়ে সবসময় হাজির হই। এটি আমাদের সামাজিক দায়বদ্ধতা। সমাজের মানুষকে ভালো রাখা, নিরাপদে রাখাই আমাদের কাজ। ঈদে আমার সন্তানরা নতুন কাপড় পরবে, আর আপনারা নতুন কাপড় পরতে পারবেন না, তা হবে না।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী মাদককের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষণা করেছেন। কারণ মাদক সবকিছু ধ্বংস করছে। আমরা ঘোষণা দিয়েছি ঢাকা মহানগরে কোনো মাদকের ব্যবসা থাকবে না। এরই মধ্যে প্রায় সব মাদকের আখড়া ভেঙে সামাজিক প্রতিষ্ঠান, মক্তব, ডে-কেয়ার সেন্টার, কালচারাল সেন্টার তৈরি করেছি। মাদক ব্যবসায়ী যেই হোক তাকে ছাড় দেয়া হবে না।

ঈদবস্ত্র নিতে আসা সবার প্রতি অনুরোধ জানিয়ে কমিশনার বলেন, মাদক আমাদের সবার শত্রু। আপনার চারপাশে যদি কোন মাদক ব্যবসায়ী থাকে তাহলে পুলিশকে নির্ভয়ে তথ্য দিন। আপনার পরিচয় গোপন রাখা হবে। মাদকের ভয়াবহতা থেকে আপনার পরিবার ও সন্তানকে রক্ষা করুন।

তিনি আরো বলেন, রমজানের এই ১৭ দিনে রাজধানীতে চুরি, ডাকাতি, ছিনতাই, অজ্ঞান পার্টির মত উল্লেখযোগ্য কোনো অপরাধ সংঘটিত হয়নি। মানুষ নিরাপত্তার সঙ্গে গভীর রাত পর্যন্ত ঈদের কেনাকাটা করে নিরাপদে বাড়ি ফিরছে। কারণ ঈদকে সামনে রেখে জনগণের নিরাপত্তা বিধানে আমরা সবধরণের ব্যবস্থা নিয়েছি।

এ সময় অসহায় ও দুঃস্থদের মাঝে গুলশান বিভাগে বনানী স্কুল মাঠে ১৫শ’ পিস ও উত্তরা বিভাগের ৬ নম্বর সেক্টর কমিউনিটি সেন্টারে ২ হাজার পিস ঈদবস্ত্র (শাড়ি, লুঙ্গি, পাঞ্জাবি ও ছোট বাচ্চাদের পোশাক) বিতরণ করা হয়।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন- ডিএমপি অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ক্রাইম এন্ড অপস্) কৃষ্ণ পদ রায়, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ডিবি) মো. আবদুল বাতেন, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক দক্ষিণ) মফিজ উদ্দিন আহমেদ, যুগ্ম পুলিশ কমিশনার (প্রটেকশন) মো. আব্দুর রাজ্জাক, যুগ্ম পুলিশ কমিশনার (অপারেশন) মো. মনির হোসেন , গুলশান বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার এস এম মোস্তাক আহমেদ খান, উত্তরা বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার নাবিদ কামাল শৈবালসহ ডিএমপি’র ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

ডেইলি বাংলাদেশ/ইএ/আরএইচ