Alexa ত্বক মুহূর্তেই উজ্জ্বল করবে ঘরোয়া এই ফেসপ্যাকটি 

ত্বক মুহূর্তেই উজ্জ্বল করবে ঘরোয়া এই ফেসপ্যাকটি 

কানিছ সুলতানা কেয়া ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১১:৪৩ ১০ অক্টোবর ২০১৯   আপডেট: ১১:৪৩ ১০ অক্টোবর ২০১৯

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

ওটমিল বা ওটস স্বাস্থ্য সচেতন মানুষের খাদ্য তালিকার প্রথমেই রয়েছে! তবে জানেন কি? ওটস শুধু স্বাস্থ্যই নয় বরং ত্বকের বিভিন্ন সমস্যা সমাধানে কার্যকরী দাওয়াই। জেনে নিন কীভাবে ত্বকের যত্নে ব্যবহার করবেন ওটমিল-

১. ব্রণের জন্য ওটমিলের মাস্ক

২০১২ সালে ইন্ডিয়ার জার্নাল অব ড্রাগস ও ডার্মাটোলোজি বিভাগ মতামত প্রকাশ করে, ওটমিলে বিদ্যমান আন্টি-অক্সিডেন্ট ও আন্টি-ইনফ্লামেটরি উপাদানসমূহ ত্বকে ব্রণের সংক্রমণ দূর করতে সাহায্য করে। 

এই মাস্কটি যেভাবে তৈরি করবেন- ২ টেবিল চামচ ওটমিলের সঙ্গে সমপরিমাণ মধু, আধা টেবিল চামচ লেবুর রস দিয়ে ভালোভাবে মশিয়ে নিন। এবার এটি আপনার ত্বকে লাগিয়ে শুকিয়ে যাওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। কুসুম গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে ১ থেকে ২ বার ব্যবহার করুন। 

২. অ্যালার্জি আক্রান্ত ত্বকের জন্য মাস্ক 

২০১৭ সালে ইন্ডিয়ান জার্নাল অব ড্রাগস ও ডার্মাটোলোজি বিভাগ প্রকাশ করে  ওটমিলে থাকা আন্টি-ইনফ্লামেটরি ত্বক লাল হয়ে যাওয়া, ব্যাথা, চুলকানি ও শুষ্ক হওয়ার হাত থেকে রক্ষা করে। 

এই মাস্কটি যেভাবে তৈরি করবেন- একটি পাত্রে ১/৩ কাপ ওটমিল আধা কাপ গরম পানিতে পাঁচ মিনিট ভিজিয়ে রাখুন। এরপর এতে ১ টেবিল চামচ মধু, ২ টেবিল চামচ টকদই মিশিয়ে নিন। ত্বকে লাগিয়ে ৩০ মিনিট পর গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এরপর অবশ্যই ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন।

৩. রোদে পোড়া ত্বকের জন্য মাস্ক

সূর্যের অতিরিক্ত বেগুনীরশ্মি ত্বকের ক্ষতি করে। এতে করে ত্বক পুড়ে যাওয়াসহ বিভিন্ন সমস্যা দেখা দেয়। এ সমস্যা থেকে পরিত্রাণ পেতে ব্যবহার করতে পারেন এই মাস্কটি। 

যেভাবে তৈরি করবেন মাস্কটি- ২ থেকে ৩ টেবিল চামচ ওটমিল নিয়ে তাতে পরিমাণমত তরল দুধ মিশিয়ে একটি পেস্ট তৈরি করুন। চাইলে মধু ও লেবুর রস মেশাতে পারেন। এটি আপনার রোদে পোড়া স্থানে লাগিয়ে রাখুন ১৫ মিনিট। শুকিয়ে গেলে ম্যাসাজ করে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে অন্তত ২ থেকে ৩ বারেএই প্যাক ব্যবহার করুন। এটি মুখ ছাড়াও হাতে পায়ে ব্যবহার করতে পারেন।

৪. উজ্জ্বল ত্বকের জন্য ওটমিলের মাস্ক  

ন্যাচারাল স্ক্রাবার হিসেবে ওটমিলের জুড়ি নেই। ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে ওটমিল খুবই কার্যকরী। এই মাস্কটি তৈরি করতে- ১ টেবিল চামচ ওটমিলের সঙ্গে সমপরিমাণ লেবুর রস এবং ২ টেবিল চামচ টকদই মিশিয়ে মুখে গলায় লাগিয়ে নিন। শুকিয়ে গেলে ম্যাসাজ করে ধুয়ে ফেলুন। এরপর ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন। 

৫. শুষ্ক ত্বকের জন্য 

ওটমিল মাস্ক শুষ্ক ত্বকের জন্য খুবই কার্যকরী। এতে থাকা আন্টি-অক্সিডেন্ট ত্বককে আর্দ্র রাখে। এই প্যাকটি তৈরি করতে- ১ থেকে ২ টেবিল চামচ সেদ্ধ ওটমিল নিয়ে পরিমাণমত পানি দিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। ত্বকে লাগিয়ে রেখে ২০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। প্রতিদিন একবার এই মাস্কটি ব্যবহার করুন। 

৬.  ব্ল্যাকহেডস দূর করতে ওটমিলের মাস্ক  

৩ থেকে ৪ টেবিল চামচ ওটমিল পাউডারের সঙ্গে মুলতানি মাটি এক টেবিল চামচ ও ২ টেবিল চামচ টকদই মেশান। ১৫ মিনিট ব্ল্যাকহেডস আক্রান্ত স্থানে লাগিয়ে রাখুন। শুকিয়ে গেলে কুসুম গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে ২ থেকে ৩ বার ব্যবহার করুন।  

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএমএস