তিন জুয়াড়িকে ছেড়ে দেয়ার অভিযোগ

তিন জুয়াড়িকে ছেড়ে দেয়ার অভিযোগ

বরগুনা প্রতিনিধি  ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৮:০০ ৫ এপ্রিল ২০২০  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

বরগুনার তালতলীতে জুয়া খেলার সময় পুলিশের হাতে আটক তিন জুয়াড়িকে ৩০ হাজার টাকার বিনিময়ে ছেড়ে দেয়ার অভিযোগ উঠেছে। 

শনিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে জুয়ার আসর থেকে তিনজন জুয়াড়িকে জুয়া খেলার সরঞ্জামাদিসহ হাতেনাতে আটক করেন পুলিশ।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার নিদ্রা এলাকায় একটি জুয়ার আসর বসার খবর পুলিশকে দেয় স্থানীয় ইউপি সদস্য শহিদ আকন। কিন্তু পুলিশ গরিমসি করে যেতে বিলম্ব করেন। এক পর্যায়ে এসআই গোলাম সারোয়ারসহ তিন চারজন পুলিশ ঘটনাস্থানে গিয়ে জুয়াড়ি জাফর আকন, শাহজাদা, ছগিরকে হাতেনাতে আটক করেন। এ সময় হাই আকন নামের একজন জুয়াড়ি পালিয়ে যায়। পরে এসআই গোলাম সারোয়ার ৩০ হাজার টাকার বিনিময়ে তাদের তিনজনকে ছেড়ে দেয় পুলিশ।

স্থানীয় ইউপি সদস্য শহিদ আকন বলেন, রাত ৮টার দিকে পুলিশকে জুয়ার ও ইয়াবা খাওয়ার আসর বসার কথা জানাই। পরে তালতলী থানা পুলিশের এসআই গোলাম সারোয়ার, এএসআই সাহাবউদ্দিন, এএসআই আবুল কালাম আজাদ, এএসআই সাইফুল ১০টার দিকে ঘটনাস্থানে এসে তাদের আটক করেন।  পুলিশ ৩০ হাজার টাকার বিনিময়ে তাদেরকে ছেড়ে দেয়। 

এ বিষয়ে এসআই গোলাম সারোয়ার বলেন, তিনজনকে ঘটনাস্থল থেকে আটক করা হয়। তবে জুয়ার ও ইয়াবার কোনো আলামত না পাওয়ায় তাদের তিনজনকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। এখানে টাকার লেনদেনের কোনো ঘটনা ঘটেনি।

তালতলী থানার ওসি কামরুজ্জামান মিয়া বলেন, জুয়া খেলার আসর বসছে এমন তথ্য পেয়ে পুলিশের একটি টিম ঘটনাস্থানে গিয়ে তিনজনকে পায়। তাদের কাছে জুয়া খেলার কোনো সরঞ্জাম পাওয়া যায়নি তাই তাদের হয়রানি না করে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। 

আমতলী-তালতলী সার্কেল সহকারী পুলিশ সুপার সৈয়দ রবিউল ইসলাম বলেন, টাকার বিনিময়ে জুয়াড়িকে ছেড়ে দেয়ার বিষয়ে তালতলী থানার ওসি কামরুজ্জামান মিয়াকে তদন্ত করে দেখার জন্য বলেছি।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে