টানা দু’বছর পানি ঢালার পর বুঝলেন গাছটি ‘নকল’!

টানা দু’বছর পানি ঢালার পর বুঝলেন গাছটি ‘নকল’!

জান্নাতুল মাওয়া সুইটি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ১৩:১৬ ৪ মার্চ ২০২০   আপডেট: ১৩:২৫ ৪ মার্চ ২০২০

ছবি: গাছে পানি ঢালা হচ্ছে

ছবি: গাছে পানি ঢালা হচ্ছে

একটি গাছ কিনে ঘরে রাখলে তার যত্নআত্তি তো করতেই হবে! আর গাছ বাঁচিয়ে রাখতে এর গোড়ায় নিয়মিত পানি ঢালার বিকল্প নেই। 

তবে আসল ভেবে নকল গাছে নিশ্চয় কেউই পানি ঢালবেন না! এমনই এক কাণ্ড ঘটিয়েছেন কেলি উইলকস নামের এক নারী। অবাক হচ্ছেন নিশ্চয়ই! আসলে বিষয়টি অত্যন্ত হাস্যকরও বটে!

টানা দুই বছর ধরে তিনি একটি গাছের যত্ন নিলেন অতঃপর জানলেন সেটি নকল। বিষয়টি তার জন্য কষ্টকর হলেও অন্যদের কাছে বেশ হাস্যকর। কেলি উইলকস তার ফেসবুক পেজে সম্প্রতি এমনই এক বিষ্ময়ক তথ্য সবার সঙ্গে শেয়ার করেছেন। সেখানে তিনি লিখেছেন-

আমি প্রায় দুই বছর ধরে এই সুন্দর অ্যালোভেরা গাছটিকে যত্ন করছিলাম। এই উদ্ভিদের মায়ায় পড়ে গিয়েছি। এটি একদমই আসল গাছের মতো দেখতে। আমি কখনো ভাবতেই পারিনি এটি নকল বা প্লস্টিকের হতে পারে। 

কেলি উইলকসের প্লাস্টিকের গাছটিআমার রান্নাঘরের জানালায় শখ করে এটি রেখেছিলাম। প্রতিদিন এর গোঁড়ায় পানি দিতাম। অন্য কেউ যদি গাছটি ধরত কিংবা পানি দেয়ার চেষ্টা করত আমি ক্ষেপে যেতাম। নিজেই গাছটির রক্ষণাবেক্ষণ করতাম। ভেবেছিলাম, এই গাছের অ্যালোভেরা পাতাগুলো বড় হলে সেগুলো আমি খাব। তা আর হলো না।

দুর্ভাগ্যক্রমে, যেদিন গাছটিকে নতুন টবে স্থানান্তর করতে গেলাম ঠিক তখনই দেখলাম এর গোড়ায় কোনো শিকড় নেই। অবাক হলাম, এই প্লাস্টিকের নকল গাছটিই আমি পরম যত্নে দু’বছর ধরে বড় করার চেষ্টা করেছি। 

নিজের উপর এখন অত্যন্ত রাগ হচ্ছে। কতটা বোকা আমি। তিনি আরো লিখেছেন, আপনাদের কাছে বিষয়টি হাস্যকর হলেও আমার কাছে এ এক কঠিন বাস্তবতা। দু’বছর শুধু আমার সময়ই নষ্ট হয়েছে।

সূত্র: ফক্সনিউজ

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএমএস