জুলাইয়ের শেষেই বাংলাদেশে ফিরছে ক্রিকেট!

জুলাইয়ের শেষেই বাংলাদেশে ফিরছে ক্রিকেট!

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ২০:২৯ ৩ জুলাই ২০২০   আপডেট: ২০:৩৫ ৩ জুলাই ২০২০

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

করোনাভাইরাসের কারণে দীর্ঘদিন ধরে স্থবির হয়ে আছে দেশের ক্রীড়াঙ্গন। কিছুদিনের মাঝে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের দামামা শুরু হতে চললেও এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে দেশের ক্রিকেট শুরুর ব্যাপারে কিছু শোনা যায়নি। তবে আশার কথা, খুব শিগগিরই মাঠে ফিরতে পারে দেশের ক্রিকেট। অবস্থা ভালো হলে জুলাইয়ের শেষ সপ্তাহেই মাঠে দেখা যেতে পারে তামিম-মুশফিকদের। 

বাংলাদেশে করোনার প্রকোপ এখনো কমেনি। প্রতিদিনই কয়েক হাজার মানুষ নতুন করে আক্রান্ত হচ্ছেন, মারা যাচ্ছেন অনেকেই। এসবের মাঝেও থেমে নেই মানুষের কর্মচাঞ্চল্য। স্বাস্থ্যবিধি মেনে অফিস সহ দেশের বিভিন্ন সেক্টর আপন গতিতে চলছে। 

তবে এতকিছুর মাঝে ব্যতিক্রম হয়ে আছে শুধু ক্রীড়াঙ্গন। যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় থেকে জুলাই মাসেও কোনো খেলাধুলা শুরু না করার ব্যাপারে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। তবে এরইমধ্যে ক্রিকেটসহ ক্রীড়াঙ্গনের বিভিন্ন ফেডারেশনের অফিস খুলেছে। শুরু হয়েছে বিভিন্ন দাপ্তরিক কাজকর্ম। 

বিসিবিতেও প্রাত্যহিক কাজগুলো শুরু হয়েছে। কর্মকর্তারা সপ্তাহে অন্তত দু’দিন মিটিং করছেন, অবশ্য সেটা অনলাইনে। এসব জিনিস উল্লেখ করে নাম প্রকাশ না করার শর্তে দেশের এক গণমাধ্যমকে বিসিবির এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, প্রায় স্বাভাবিক নিয়মেই চলছে বিসিবি। তিনি বলেন, দেখেন আমাদের কিছুই থেমে নেই। আমরা আগে যেটা অফিসে বসে করতাম সেগুলো এখন অনলাইনে করছি। বিসিবির প্রাত্যহিক কাজ অব্যাহত রয়েছে। শুধু মাঠে ক্রিকেট নেই। 

তিনি আরো বলেন, মাঠের ক্রিকেট ছাড়া আমাদের সব কার্যক্রম চলছে। ম্যানেজারদের মিটিং, কোচদের মিটিং সবই চলছে। এছাড়া করোনাকালে ক্রিকেটারদের করণীয় জানিয়ে দেয়া হচ্ছে। সবকিছু মনিটর করা হচ্ছে। পরিস্থিতি উন্নতি হলে ক্রিকেটাররা ফিরবেন অনুশীলনে। ক্রিকেটও মাঠে ফিরবে।

এদিকে করোনা পরবর্তী সময়ে ক্রিকেট শুরুর রুপরেখাও বিসিবি তৈরি করে রেখেছে বলে জানান সেই কর্মকর্তা। সেই ইঙ্গিত দিয়ে বৃহস্পতিবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ক্রিকেট ফেরাতে সবগুলো মাঠ প্রস্তুত রাখার কথা জানিয়েছে বিসিবি।

বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গেছে, পুনরায় ক্রিকেট শুরুর খুব কাছাকাছি আছে বিসিবি। সবকিছু ঠিক থাকলে চলতি জুলাই মাসের শেষ দিকে বা আগস্টের প্রথম সপ্তাহে সচল হবে দেশের ক্রিকেট। প্রথমে ফিটনেস ক্যাম্প দিয়েই হোম অব ক্রিকেট তথা মিরপুর শেরে-বাংলা স্টেডিয়ামে ফিরবেন ক্রিকেটাররা। 

এছাড়া বিসিবিতে ক্রিকেট শুরুর আলোচনাও বেশ ভালোভাবে চলছে বলে জানা গেছে। এক গণমাধ্যমকে বিসিবির বিশেষ সূত্র জানিয়েছে, ‘আলোচনা চলমান রয়েছে। এখনো কিছুই চূড়ান্ত হয়নি। হয়তো জুলাইয়ের শেষ দিকে বা আগস্টের প্রথম সপ্তাহে শুরু হতে পারে। আমাদের মাঠগুলো ক্রিকেটীয় কার্যক্রম শুরু করার জন্য প্রস্তুত করা হয়েছে। এটা আসলে করোনা পরিস্থিতির উপর পুরোপুরি নির্ভর করছে। পরিস্থিতির উন্নতি হলেই সব শুরু হয়ে যাবে।’

ক্রিকেট ফেরানোর ব্যাপারে বিসিবির মেডিক্যাল বিভাগ পুরো পরিকল্পনা তৈরি করছে বলে জানা গেছে। তাদের পরিকল্পনা অনুযায়ীই স্বাস্থ্যবিধি মেনে বাংলাদেশে করোনা পরবর্তী ক্রিকেট শুরু হবে। ক্রিকেটারদের ক্যাম্পটা গ্রুপে হবে নাকি একাকী সব তারা ঠিক করবে। এছাড়া গ্রুপ হলে একটা গ্রুপে কতজন থাকবে এসবও তারা চূড়ান্ত করবে। মেডিক্যাল বিভাগ প্ল্যান দেয়ার পরই প্রাথমিক কাজ শুরু হবে। এরপর শুরু হবে নির্বাচকদের কাজ। এসময় তারা ক্যাম্পের জন্য একটা প্রাথমিক স্কোয়াড দিবেন।

তবে পুরোপুরি ক্রিকেট শুরুর ক্ষেত্রে পরিস্থিতি উন্নতির কথাই বলছে বিসিবি। সেক্ষেত্রে আরো কিছুদিন পর্যবেক্ষণ করতে চায় তারা। এমনটা হলে জুলাই মাসে ক্রিকেট শুরুর সম্ভাবনা কম। তবে আগামী কয়েকদিন করোনা পরিস্থিতির বড়সড় উন্নতি হলে ২০ জুলাইয়ের পরই ক্রিকেটাররা মাঠে ফিরতে পারেন। অন্যথায় আগস্টে ঈদুল আজহার পর ক্রিকেটারদের অনুশীলনে দেখা যেতে পারে বলে জানা গেছে। 

ডেইলি বাংলাদেশ/এএল