চকলেটের লোভ দেখিয়ে সাত বছরের শিশুকে চাচার ধর্ষণ

চকলেটের লোভ দেখিয়ে সাত বছরের শিশুকে চাচার ধর্ষণ

রাজৈর (মাদারীপুর) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

প্রকাশিত: ২০:০৮ ২ জুন ২০২০   আপডেট: ২২:৩০ ২ জুন ২০২০

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

মাদারীপুরের রাজৈরে চকলেটের লোভ দেখিয়ে ঘরে ডেকে নিয়ে সাত বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে চাচা ইউনুস ফকিরের বিরুদ্ধে।

রোববার দুপুরে উপজেলার হোসেনপুর ইউপির কৃষ্ণপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে ।  এ ঘটনায় সোমবার দুপুরে ধর্ষক ইউনুস ফকিরকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বিকেলে ধর্ষককে মাদারীপুর আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। নির্যাতিতা শিশুটিকে আহত অবস্থায় মাদারীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় নারী শিশু নির্যাতন আইনে মামলা হয়েছে।

উপজেলার হোসেনপুর ইউপির কৃষ্ণপুর গ্রামের ইউনুস ফকির তার চাচাতো ভাইয়ের শিশু মেয়েকে চকলেটের প্রলোভন দেখিয়ে রোববার দুপুরে তার ফাঁকা থাকা ঘরে ডেকে নেয়। ওই শিশুকে অনেক সময় ধরে তার মা খুঁজে না পেয়ে ইউনুসের ঘরে গেলে তাদের অপ্রীতিকর অবস্থায় দেখতে পান। সোমবার দুপুরে ওই শিশুর মা তার বাবার বাড়ি (শিশুর নানা বাড়ি) যাওয়ার কথা বলে রাজৈর থানায় গিয়ে অভিযোগ করেন। 

অভিযোগ পেয়ে পুলিশ অভিযুক্ত চাচা ইউনুস ফকিরকে আটক করে। এ ব্যাপারে রাজৈর থানায় একটি নারী শিশু ও নির্যাতন আইনে মামলা হয়েছে।

নির্যাতিতার মা বলেন, আমার মেয়েকে অনেক খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে পরে ওই ঘরে সামনে গেলে দেখি ঘরের সামনে আমার মেয়ের স্যান্ডেল রাখা। পরে আমি ঘরে ঢুকে দেখি এই অবস্থা। আমাকে বিভিন্নভাবে হুমকি দিয়ে মুখ বন্ধ রাখতে বাধ্য করে। আমি কৌশলে সোমবার আমার বাবার বাড়ি যাবার কথা বলে বাড়ি থেকে থানায় আসি। আমি এর বিচার চাই।

রাজৈর থানার ওসি খোন্দকার শওকত জাহান বলেন, আমরা ঘটনাটি জানার সঙ্গে সঙ্গে অভিযুক্ত ইউনুসকে গ্রেফতার করি। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। ধর্ষককে মাদারীপুর আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। শিশুটিকে চিকিৎসার জন্য সোমবার বিকেলে মাদারীপুর সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছি। মঙ্গলবার সকালে তার মেডিকেল চেকআপ হয়।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ/এআর